বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Bardhaman: নার্সিংহোমের সামনে তারস্বরে বাজছে ডিজে, প্রতিবাদ করতেই ভাঙচুর নার্সিংহোম
এই নার্সিংহোমে ভাঙচুর চালানো হয়েছে। নিজস্ব ছবি।

Bardhaman: নার্সিংহোমের সামনে তারস্বরে বাজছে ডিজে, প্রতিবাদ করতেই ভাঙচুর নার্সিংহোম

  • পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বর্ধমান থানার ডিভিসি মোড়ে অবস্থিত ওই নার্সিংহোমের পাশেই বেশ কয়েক বছর ধরে পুজো হয়ে আসছে। সেই পুজো উপলক্ষে বাজানো হয় ডিজে। যদিও উদ্যোক্তারা বলেন ডিজে বাজানোর অনুমতি ছিল তাদের।

নার্সিংহোমের সামনে তারস্বরে বাজছে ডিজে। তার জেরে কার্যত অসুস্থ হয়ে পড়েন নার্সিংহোমের বহু রোগী। নার্সিংহোম এবং রোগী পরিবারের বারবার অনুরোধ করা সত্ত্বেও ডিজের শব্দ কমানো হয়নি। আর তার প্রতিবাদ জানাতে গিয়েই রোগীর আত্মীয়দের মারধর করা হল, ভাঙচুর করা হল নার্সিংহোম। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায়। ঘটনাটি পূর্ব বর্ধমানের ডিভিসি মোড়ের কাছে অবস্থিত একটি বেসরকারি নার্সিংহোমের। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বর্ধমান থানার ডিভিসি মোড়ে অবস্থিত ওই নার্সিংহোমের পাশেই বেশ কয়েক বছর ধরে পুজো হয়ে আসছে। সেই পুজো উপলক্ষ্যে বাজানো হয় ডিজে। যদিও উদ্যোক্তারা বলেন ডিজে বাজানোর অনুমতি ছিল তাদের। কিন্তু, নার্সিংহোমের পাশে তারস্বরে ডিজে বাজানোর ফলে রোগীরা আরও অসুস্থ হয়ে পড়েন। অতিরিক্ত আওয়াজে অতিষ্ঠ হয়ে ওঠেন রোগীর আত্মীয়রা ও নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ। এরপর নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ উদ্যোক্তাদের বলতে গেলে তারা আওয়াজ কমিয়ে দেয়। কিন্তু, সেটা মাত্র কয়েক মিনিটের জন্য।

নার্সিংহোমের সামনে তারস্বরে বাজছে ডিজে। তার জেরে কার্যত অসুস্থ হয়ে পড়েন নার্সিংহোমের বহু রোগী। নার্সিংহোম এবং রোগী পরিবারের বারবার অনুরোধ করা সত্ত্বেও ডিজের শব্দ কমানো হয়নি। আর তার প্রতিবাদ জানাতে গিয়েই রোগীর আত্মীয়দের মারধর করা হল, ভাঙচুর করা হল নার্সিংহোম। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায়। ঘটনাটি পূর্ব বর্ধমানের ডিভিসি মোড়ের কাছে অবস্থিত একটি বেসরকারি নার্সিংহোমের। অভিযোগ পেয়ে পুলিশ ৪ জনকে গ্রেফতার করেছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বর্ধমান থানার ডিভিসি মোড়ে অবস্থিত ওই নার্সিংহোমের পাশেই বেশ কয়েক বছর ধরে পুজো হয়ে আসছে। সেই পুজো উপলক্ষে বাজানো হয় ডিজে। যদিও উদ্যোক্তারা বলেন ডিজে বাজানোর অনুমতি ছিল তাদের। কিন্তু, নার্সিংহোমের পাশে তারস্বরে ডিজে বাজানোর ফলে রোগীরা আরও অসুস্থ হয়ে পড়েন। অতিরিক্ত আওয়াজে অতিষ্ঠ হয়ে ওঠেন রোগীর আত্মীয়রা ও নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ। এরপর নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ উদ্যোক্তাদের বলতে গেলে তারা আওয়াজ কমিয়ে দেয়। কিন্তু, সেটা মাত্র কয়েক মিনিটের জন্য।

 এরপর আবার আওয়াজ বাড়তে থাকায় অসুস্থ হয়ে পড়েন বেশ কয়েকজন রোগী। ফের রোগীর আত্মীয় ও নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ প্রতিবাদ করায় নার্সিংহোমে ভাঙচুর চালানো হয় এবং রোগীর আত্মীয়দের মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। এছাড়াও বেশ কয়েকজনের মোবাইল ভেঙে দেওয়া হয়েছে। নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষের অভিযোগ পুলিশের সামনেই জোরে মাইক বাজানো হচ্ছিল। অভিযোগ পেয়ে বর্ধমান থানার পুলিশ এসে চারজনকে গ্রেফতার করে। বৃহস্পতিবার তাদের তোলা হয় বর্ধমান জেলা আদালতে।

বন্ধ করুন