বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > পিংলায় প্রতিবন্ধী মহিলাকে ধর্ষণে ধৃত তৃণমূল পঞ্চায়েত সদস্য, পেশ করা হল আদালতে

পিংলায় প্রতিবন্ধী মহিলাকে ধর্ষণে ধৃত তৃণমূল পঞ্চায়েত সদস্য, পেশ করা হল আদালতে

পিংলায় প্রতিবন্ধি মহিলাকে ধর্ষণের অভিযোগ। প্রতীকী ছবি।

পিংলায় প্রতিবন্ধী মহিলাকে ধর্ষণের অভিযোগের ক্ষেত্রে বয়ান বদল নিয়ে জোর বিতর্ক তৈরি হয়।

পিংলায় প্রতিবন্ধী মহিলাকে ধর্ষণের ঘটনায় তৃণমূলের পঞ্চায়েত সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ । ধৃত তৃণমূল পঞ্চায়েত সদস্যের নাম অভিজিৎ মন্ডল। আজ তাকে মেদিনীপুর সিজিএম আদালতে তোলা হলে তার পুলিশ হেফাজতের জন্য আবেদন জানানো হয়। প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে, পুলিশ সাত দিনের হেফাজত চেয়ে বিচারকের কাছে আবেদন জানিয়েছে। তবে এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনও রায় দেয়নি আদালত।

প্রসঙ্গত, পিংলায় প্রতিবন্ধী মহিলাকে ধর্ষণের অভিযোগের ক্ষেত্রে বয়ান বদল নিয়ে জোর বিতর্ক তৈরি হয়। প্রথমে ওই মহিলার পরিবারের পক্ষ থেকে ধর্ষণের অভিযোগ তোলা হলেও পরে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ আনা হয়। পরিবারের কেন এই বয়ান বদল তা নিয়ে রাজনৈতিক চর্চা শুরু হয়েছে। যদিও বিজেপির অভিযোগ তৃণমূলের লোকেরা ভয় দেখানোর কারণে আতঙ্কে বয়ান বদল করেছে ওই পরিবার। ধৃতের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৭৬, ৫১১, ৩৫৪বি প্রভৃতি ধারায় মামলা রুজু হয়েছে। তার ভিত্তিতে তদন্ত করছে পুলিশ।

পিংলা থানার কালুখারা গ্রামে প্রতিবন্ধী ওই মহিলাকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে সোমবার রাতে। অভিযোগ দিদির কাছে বেড়াতে যাওয়ার পর ঘাটে বাসন মাজার সময় তাকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ এবং মারধর করে ওই তৃণমূল নেতা। পরে তাকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে তৃণমূলের পক্ষ থেকে চিকিৎসায় বাধা দেওয়া হয় বলে অভিযোগ।

সম্প্রতি রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে একের পর এক ধর্ষণ এবং নারী নির্যাতনের ঘটনা প্রকাশ্যে আসছে। তারইমধ্যে পিংলার এই ঘটনার তীব্র সমালোচনা করেছে বিজেপি। দলের ঘাটাল সাংগঠনিক জেলার সভাপতি তন্ময় দাস এই ঘটনাকে নিন্দনীয় বলে সমালোচনা করেন। অন্যদিকে, ধর্ষণের ঘটনার প্রতিবাদে আজ বুধবার মেদিনীপুর শহরে মিছিল করে প্রতিবন্ধী মানুষদের সংগঠন প্রতিবন্ধী সম্মেলনী।

বন্ধ করুন