বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Hoogly: বন্ধুদের সঙ্গে পুজো দেখতে বেরিয়ে নিখোঁজ যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার জলাশয় থেকে

Hoogly: বন্ধুদের সঙ্গে পুজো দেখতে বেরিয়ে নিখোঁজ যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার জলাশয় থেকে

যুবকের রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার। (প্রতীকী ছবি)

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, দশমীর রাতে বন্ধুদের সঙ্গে পুজো দেখতে বেরিয়েছিল রাজকুমার। তার পরিবারের লোকেরা জানাচ্ছেন, তার বন্ধুরাই তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়েছিল। এরপর তার বন্ধুরা একে একে বাড়ি ফিরলেও ফেরেনি রাজকুমার।

দশমীর রাতে নিখোঁজ হয়েছিল যুবক। তার পরের দিন একটি জলাশয় থেকে উদ্ধার হল যুবকের রক্তাক্ত মৃতদেহ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। গতকাল হুগলির দিল্লি রোডের পাশে নয়ানজুলির একটি জলাশয় থেকে তার রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার হয়েছে। ঘটনায় খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে তার পরিবার। ইতিমধ্যে এই খুনের ঘটনায় তারা দুই বন্ধুকে আটক করেছে পুলিশ। মৃত যুবকের নাম রাজকুমার সাউ (২২)।

সাত সকালে সম্পত্তি বিবাদের জেরে টিটাগড়ে বিটি রোডের পাশে গলার নলি কেটে খুন

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, দশমীর রাতে বন্ধুদের সঙ্গে পুজো দেখতে বেরিয়েছিল রাজকুমার। তার পরিবারের লোকেরা জানাচ্ছেন, তার বন্ধুরাই তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়েছিল। এরপর তার বন্ধুরা একে একে বাড়ি ফিরলেও ফেরেনি রাজকুমার। রাত পেরিয়ে যাওয়ার পরে বাড়ি না ফেরায় উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন পরিবারের সদস্যরা। পরে তারা গতকাল ভদ্রেশ্বর থানায় নিখোঁজের ডায়েরি করেন। অবশেষে তার রক্তাক্ত দেহ উদ্ধার হয়। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, যুবকের দেহে একাধিক আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গিয়েছে।

রাজকুমার সাউ হুগলির চাঁপদানির হরিহর গলির বাসিন্দা। তার পরিবারের সদস্যদের দাবি, শ্রীরামপুরে পুজো দেখতে যাওয়ার জন্য তার দুই বন্ধু তাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়েছিল। তারপরে আর ফেরেনি। কী কারণে তাকে খুন করা হয়েছে তা কিছুতেই বুঝে উঠতে পারছেন না পরিবারের সদস্যরা। তবে তাদের দাবি, সম্প্রতি এলাকারই এক তরুণীর সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠেছিল রাজকুমারের। এখন সেই কারণেই কি তাকে খুন করা হয়েছে তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। তবে যেহেতু তার বন্ধুরা তাকে ডেকে নিয়ে গিয়েছিল। তাই তার দুই বন্ধুকে ইতিমধ্যেই আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে পুলিশ। রাজকুমারের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

বন্ধ করুন