বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > রেলের জমিতে বেসরকারি স্কুল, আসানসোলে বুলডোজার দিয়ে গুঁড়িয়ে দিল রেল কর্তৃপক্ষ
বুলডোজার চালিয়ে গুঁড়িয়ে দেওয়া হল স্কুল।
বুলডোজার চালিয়ে গুঁড়িয়ে দেওয়া হল স্কুল।

রেলের জমিতে বেসরকারি স্কুল, আসানসোলে বুলডোজার দিয়ে গুঁড়িয়ে দিল রেল কর্তৃপক্ষ

  • আসানসোল লোকসভা উপনির্বাচন পরাজয়ের পর থেকেই আগ্রাসী মেজাজ দেখাচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকারি সংস্থা। তাই তড়িঘড়ি ভেঙে ফেলা হল স্কুল। রাতারাতি রেলের জমি এবং রেলের কোয়ার্টার খালি করতে উদ্যোগী হয়েছে আসানসোল রেল ডিভিশন। 

নয়াদিল্লির মতো বুলডোজার নীতি দেখল এই বাংলাও। এখানের রেলের জমিতে একটি শিশুদের স্কুল ছিল। এটা বহুদিন ধরেই ছিল। বিবেকানন্দের নামে এই স্কুল ধূলোয় মিশে গেল মুহূর্তে। কোনও বিকল্প পথের সুযোগ না দিয়েই একেবারে নয়াদিল্লির ধাঁচেই বুলডোজার চালিয়ে গুঁড়িয়ে দেওয়া হল স্কুল। এই কাজটি করল রেল প্রশাসন। বৃহস্পতিবার বেশি রাতে এই ঘটনা ঘটেছে।

ঠিক কী ঘটেছে আসানসোলে?‌ স্থানীয় সূত্রে খবর, এই স্কুলটির নাম বিবেকানন্দ স্কুল। এখানে বহু ছাত্রছাত্রী পড়োশোনা করে। কিন্তু আজ, বুধবার সকাল থেকে তাদের মাথায় হাত। এরপর কোথায় গিয়ে তারা পাঠ নেবেন। কারণ মঙ্গলবার বেশি রাতে আসানসোল সিটি বাস স্ট্যান্ড লাগোয়া এই বিবেকানন্দ স্কুল গুঁড়িয়ে দিয়েছে রেল প্রশাসন। সম্প্রতি স্কুলে থাকা বেঞ্চ–সহ অন্যান্য সামগ্রী বাজেয়াপ্ত পর্যন্ত করে নিয়ে যায় রেল কর্তৃপক্ষ। এবার তা গুঁড়িয়ে দেওয়া হল।

কেমন করে গুঁড়িয়ে দিল স্কুল?‌ স্কুল সূত্রে খবর, মঙ্গলবার বেশি রাতে বুলডোজার চালিয়ে স্কুল গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়। রেল কর্তৃপক্ষ স্কুলে গরমের ছুটির সুযোগ নিয়েই এই কাজ করেছে। সুতরাং পড়ুয়ারা এখন বিদ্যালয়হীন হয়ে পড়ল। বিকল্প ব্যবস্থা বা বাড়তি সময় পর্যন্ত দেওয়া হয়নি। আসানসোল রেল ডিভিশনের নানা জায়গায় অবৈধ দখলদার সরাতে চায় রেল কর্তৃপক্ষ। স্কুলকেও নোটিশ দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু তারপরেই রেল কর্তৃপক্ষ গুঁড়িয়ে দিল স্কুল।

উল্লেখ্য, আসানসোল লোকসভা উপনির্বাচন পরাজয়ের পর থেকেই আগ্রাসী মেজাজ দেখাচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকারি সংস্থা। তাই তড়িঘড়ি ভেঙে ফেলা হল স্কুল। রাতারাতি রেলের জমি এবং রেলের কোয়ার্টার খালি করতে উদ্যোগী হয়েছে আসানসোল রেল ডিভিশন। তারই জেরে রেল প্রশাসন আরপিএফ এবং রাজ্য পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে আর্থ মুভার ব্যবহার করে গুঁড়িয়ে দিল বিবেকানন্দ স্কুল।

বন্ধ করুন