বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > করোনার নতুন স্ট্রেন নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ মমতার, প্রস্তুত থাকতে বললেন আধিকারিকদের
বোলপুরে প্রশাসনিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ছবি সৌজন্য : পিটিআই (PTI)
বোলপুরে প্রশাসনিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ছবি সৌজন্য : পিটিআই (PTI)

করোনার নতুন স্ট্রেন নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ মমতার, প্রস্তুত থাকতে বললেন আধিকারিকদের

  • ২১ ডিসেম্বর ইংল্যান্ড থেকে কলকাতায় ফেরা দুই যাত্রীর করোনা ধরা পড়েছে। ২৩ ডিসেম্বর ইংল্যান্ড থেকে ভারতে বিমান পরিষেবা বন্ধ হওয়ার আগে সেটিই ছিল কলকাতায় আসা শেষ বিলেতফেরত বিমান।

ইংল্যান্ড–সহ ইউরোপের কিছু দেশে করোনাভাইরাসের নয়া প্রজাতি (‌স্ট্রেন) নিয়ে রীতিমতো উদ্বেগ তৈরি হয়েছে। সেই দেশ থেকে বিমান বন্ধেরও দাবি উঠেছে। এবার সেই একই উদ্বেগের কথা শোনা গেল পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখে। সোমবার বীরভূমের প্রশাসনিক বৈঠকে কোভিড ১৯–এর নতুন স্ট্রেনের জন্য প্রস্তুত থাকতে সরকারি আধিকারিকদের নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

এদিন তিনি বলেন, ‘‌ইংল্যান্ডে করোনাভাইরাসের একটি নতুন স্ট্রেন দেখা দিয়েছে এবং বলা হচ্ছে যে এটি আরও শক্তিশালী। সংক্রমণের একটা সেকেন্ড ওয়েভ আসতে পারে। এ জন্য আমাদের প্রস্তুত থাকা উচিত। ইংল্যান্ড, ইতালি–সহ বেশ কয়েকটি দেশ আবার লকডাউন শুরু করেছে। আমাদের এ ব্যাপারে আরও সাবধান হওয়া উচিত। যাতে এই পরিস্থিতি এই দেশে তৈরি না হয় তার ব্যবস্থাও আমাদের করতে হবে।’‌

এদিন মুখ্যমন্ত্রী বীরভূম জেলায় একটি প্রশাসনিক বৈঠকে বক্তব্য রাখছিলেন। রাজ্য সরকারের শীর্ষ আমলারাও বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন। তখনই এ ব্যাপারে উদ্বেগ প্রকাশ করে সকলকে সাবধান করেন মমতা। যদিও এদিন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে আশা প্রকাশ করে জানিয়েছেন যে দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা দিনের পর দিন কমছে।

এদিকে, ২১ ডিসেম্বর ইংল্যান্ড থেকে কলকাতায় ফেরা দুই যাত্রীর করোনা ধরা পড়েছে। ২৩ ডিসেম্বর ইংল্যান্ড থেকে ভারতে বিমান পরিষেবা বন্ধ হওয়ার আগে সেটিই ছিল কলকাতায় আসা শেষ বিলেতফেরত বিমান। উল্লেখ্য, ১ নভেম্বর পশ্চিমবঙ্গে অ্যাকটিভ কোভিড কেসের সংখ্যা ছিল ৩৬ হাজার ৭৬১। ২৭ ডিসেম্বর তা কমে ১৩ হাজার ৭৭৪–এ দাঁড়িয়েছে। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে ৫ লক্ষ ৪৭ হাজার ৪৪৩ জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন আর তার মধ্যে ৯৫৯৮ জনের মৃত্যু হয়েছে।

বন্ধ করুন