বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Renu: স্বামী ডান হাত কেটে নিয়েছে, বাঁ হাতেই ছবি আঁকবেন রেণু, আটকাবে সাধ্য কার?
রেণু খাতুন ভালো ছবি আঁকতেন। সৌজন্যে ফেসবুক।

Renu: স্বামী ডান হাত কেটে নিয়েছে, বাঁ হাতেই ছবি আঁকবেন রেণু, আটকাবে সাধ্য কার?

  • লড়াইয়ের প্রতিশব্দ রেণু খাতুন। এভাবেই ঘুরে দাঁড়ানো যায় গোটা বাংলাকে শেখাচ্ছে রেণু। তিনি ভালো ছবিও আঁকতেন। পারবেন তিনি বাঁ হাতে ফুটিয়ে তুলতে মনের সব কিছু? পারবেন। রেণুরা বার বার দেখিয়ে দিয়েছেন, মনের জোর থাকলে সব সম্ভব।

সরকারি নার্সের চাকরি পেয়েছিলেন পূর্ব বর্ধমানের কেতুগ্রামের রেণু খাতুন। অপরাধ বলতে এটা। আর সেই চাকরি পাওয়ার চরম শাস্তি দিয়েছিল তার স্বামী শের মহম্মহ শেখ। ভাড়া করা দুষ্কৃতীদের সঙ্গে নিয়ে স্ত্রীর ডান হাতের কব্জি থেকে কেটে নিয়েছিল স্বামী। কিন্তু এত সহজে হার মানতে রাজি নন রেণু।

ডান হাতের কব্জি থেকে কেটে নিয়েছে স্বামী। তার দুদিন পরেই হাসপাতালের বেডে বসে বাঁ হাতে পেন ধরেছেন সাহসিনী। তিনি অপরাজিতা। তিনি দশভুজা। তবে শুধু লেখাপড়াতেই রেণু ভালো এমনটা নয়, তিনি ভালো ছবিও আঁকতেন। তবে রেণুর আজকের লড়াইয়ের পাশে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে দাঁড়িয়েছে গোটা বাংলা। ইতিমধ্যেই ফেসবুকে পাশাপাশি দুটি ছবি পোস্ট করা হয়েছে।

 একদিকে রেণু খাতুনের ডান হাতে মোটা ব্যান্ডেজ। আর কোনওদিন তিনি ডানহাতের কব্জিটা ফিরে পাবেন কি না তা নিয়ে সংশয় জোরালো। আর পাশের ছবিতে দেখা যাচ্ছে রেণু একটি ফটো ফ্রেমকে তুলে ধরেছেন। দাবি করা হয়েছে এটা তাঁরই হাতের আঁকা পোট্রেট। আগের তোলা ছবি। 

সোশ্যাল মিডিয়াল লেখা হয়েছে, রেণুর স্বামী তাঁর ডান হাত কব্জি থেকে কেটে নিয়েছে কারণ রেণু চাকরি করতে চেয়েছিলেন। রেণু খুব সুন্দর ছবি আঁকতেন। এখন আঁকতে পারছেন না, তবে শীঘ্রই ফের পারবেন। কারণ রেণু হাসপাতালে বসেই বাঁ হাতে লেখার অভ্যাস শুরু করে দিয়েছেন। রেণুকে আটকাবে সাধ্য কার!

আজ গোটা বাংলার মুখেও সেই একই কথা রেণুদের আটকাবে সাধ্য কার! এই রেণুরাই আজ উজ্জ্বল করেছেন বাংলার মুখ। তাঁদের সাহসিকতা, অদম্য জেদকে কুর্নিশ করছে গোটা বাংলা। 

বন্ধ করুন