বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > স্কুলের দরজা খুলেছে, ট্রেনে চেপে স্কুল-কলেজে, যাতায়াতের পাস কি মিলবে?
ট্রেনে যাতায়াতের জন্য পড়ুয়ারা আগের নিয়মেই পাস পাবেন। (ছবিটি প্রতীকী)
ট্রেনে যাতায়াতের জন্য পড়ুয়ারা আগের নিয়মেই পাস পাবেন। (ছবিটি প্রতীকী)

স্কুলের দরজা খুলেছে, ট্রেনে চেপে স্কুল-কলেজে, যাতায়াতের পাস কি মিলবে?

  • প্রশ্ন উঠছে এতদিন তো ফ্রি পাস নিয়েই ট্রেনে চড়ে কলেজে, বিশ্ববিদ্যালয়ে যেতেন পড়ুয়ারা? কিন্তু অতিমারির সময় সেই ধরণের ছাড়ে অনেকটাই কাটছাঁট করা হয়েছিল।

অতিমারির দাপট কিছুটা কমতেই একে একে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলি খুলতে শুরু করেছে। পড়ুয়ারাদের একাংশ স্কুলে আসতে শুরু করেছে। কলেজে, বিশ্ববিদ্যালয়েও যেতে শুরু করেছেন পড়ুয়ারা। পরিস্থিতি ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে। অন্যদিকে লোকাল ট্রেনও অনেকটাই স্বাভাবিক হয়ে গিয়েছে। এদিকে অনেকের কাছেই কলেজে ও বিশ্ববিদ্যালয়ে যাওয়ার অন্যতম ভরসা লোকাল ট্রেন। এখানেই প্রশ্ন উঠছে এতদিন তো ফ্রি পাস নিয়েই ট্রেনে চড়ে কলেজে, বিশ্ববিদ্যালয়ে যেতেন পড়ুয়ারা? কিন্তু অতিমারির সময় সেই ধরণের ছাড়ে অনেকটাই কাটছাঁট করা হয়েছিল। তবে এবার কি সেই পাসের সুবিধা পাবেন পড়ুয়ারা? 

তবে রেল অবশ্য ছাত্রছাত্রীদের জন্য স্বস্তির খবর শুনিয়েছে। রেল সূত্রে খবর, বিগতদিনের মতোই ফ্রি পাস পাবেন পড়ুয়ারা। কীভাবে সেই ফ্রি পাস পাওয়া যাবে তা নিয়েও জানিয়ে দিয়েছে রেল কর্তৃপক্ষ। রেল সূত্রে খবর, বিগতদিনে রেলের পাসের জন্য স্কুলের প্রধান শিক্ষক ও কলেজের ক্ষেত্রে অধ্যক্ষরা আবেদন করতেন। এবার সেই পদ্ধতিতেই তাঁরা আবেদন করতে পারবেন। এদিকে দীর্ঘদিন ধরেই পড়ুয়ারা স্কুলে আসেনি। সেই পুরানো ফর্মও পড়ে রয়েছে স্কুলে। সেই ফর্ম দিয়েও কাজ চালানো যেতে পারে। রেল সূত্রে জানা গিয়েছে, লকডাউনের আগে রেলের পাসের ফর্ম স্কুলে বা কলেজে থাকলে সেগুলিও ছাত্রছাত্রীদের দেওয়া যেতে পারে। সেক্ষেত্রে সেই ফর্ম পূরণ করে ছাত্রছাত্রীরা স্টেশনের বুকিং কাউন্টার থেকে ফ্রি পাস নিতে পারবেন। 

 

বন্ধ করুন