বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > মদ্যপ অবস্থায় বাড়ি ফেরায় বকেছিলেন বাবা, অভিমানে আত্মঘাতী যুবকের
মদ্যপ অবস্থায় বাড়ি ফেরায় বকেছিলেন বাবা, অভিমানে চরম পথ বেছে নিল ছেলে! ছবিটি প্রতীকী (HT_PRINT)
মদ্যপ অবস্থায় বাড়ি ফেরায় বকেছিলেন বাবা, অভিমানে চরম পথ বেছে নিল ছেলে! ছবিটি প্রতীকী (HT_PRINT)

মদ্যপ অবস্থায় বাড়ি ফেরায় বকেছিলেন বাবা, অভিমানে আত্মঘাতী যুবকের

  • ৮ দিন ধরে নিখোঁজ থাকার পর অবশেষে এলাকার একটি আমবাগান থেকে তার ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার হল।

মদ্যপ অবস্থায় বাড়ি ফেরায় বকাবকি করেছিলেন বাবা। সেই অভিমানে বাড়ি ছেড়ে নিখোঁজ হয়ে গিয়েছিল ছেলে। ৮ দিন ধরে নিখোঁজ থাকার পর অবশেষে এলাকার একটি আমবাগান থেকে তার ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার হল। মঙ্গলবার সকালে এই ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ইংরেজবাজারের সদুল্লাপুর এলাকায়।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছে ওই যুবকের পচাগলা ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার করে ইংরেজবাজার থানার পুলিশ। দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মালদ‌হ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃত ওই যুবকের নাম মনোজ সরকার(১৯)। প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, বেশ কয়েকদিন আগেই ওই যুবক আত্মঘাতী হয়েছেন। তার ফলে দেহে পচন ধরায় দুর্গন্ধ ছড়িয়ে পড়ে গোটা এলাকায়।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই এলাকার বাসিন্দা অধীর সরকারের তিন ছেলের মধ্যে মেজো ছেলে মনোজ। ষষ্ঠ শ্রেণি পর্যন্ত পড়াশোনা করার পর স্কুল ছেড়ে দিয়েছিলেন ওই যুবক। বর্তমানে ঠিকা শ্রমিকের কাজ করতেন। এদিন সকালে স্থানীয় বাসিন্দারা ওই আমবাগানে জঙ্গল পরিষ্কার করতে গিয়ে ওই যুবকের পচাগলা ঝুলন্ত দেহ দেখতে পান। তারপর ওই পরিবারকে খবর দেন তাঁরা।

মৃত ওই যুবকের দাদা বিক্রম সরকার জানান, 'গত মঙ্গলবার থেকে ভাই নিখোঁজ হয়ে গিয়েছিল। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাকে না পেয়ে পুলিশকে বিষয়টি জানিয়েছিলেন। এদিন সকালে ভাই‌য়ের দেহ একটি আম গাছে ঝুলতে দেখা যায়। ঘটনার দিন মদ্যপ অবস্থায় বাড়িতে ফিরেছিল ভাই। সেই কারণে বাবা তাকে বকাবকিও করেছিলেন। তারপরেই বাড়ি ছেড়ে বেরিয়ে যান। আমাদের সন্দেহ, বাবার বকাবকির কারণেই অভিমানে আত্মঘাতী হয়েছে।'

বন্ধ করুন