বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ধর্মব্যবসায়ীরা গোলমাল করতে চাইছে, ISF-এর হাতে TMC নেতা আক্রান্ত হওয়ায় বললেন সওকত

ধর্মব্যবসায়ীরা গোলমাল করতে চাইছে, ISF-এর হাতে TMC নেতা আক্রান্ত হওয়ায় বললেন সওকত

সওকত মোল্লা।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছন ক্যানিং পূর্বের তৃণমূল বিধায়ক সওকত মোল্লা। তিনি বলেন, ‘ধর্মব্যবসায়ীরা এখানে অশান্তি করার চেষ্টা করছে। আমরা শান্তি চাই। আজ আমাদের এক প্রবীণ নেতাকে মেরেছে। কিন্তু এর পর যদি আমাদের কর্মীদের গায়ে হাত পড়ে তাহলে পালটা মার হবে।’

ভাঙড়ে ISF-এর হাতে আক্রান্ত তৃণমূল নেতা। মঙ্গলবার দুপুরে ভাঙড়ের মধ্য ঘটকপুকুরে আক্রান্ত হন INTTUC নেতা আইনাল মোল্লা। গুরুতর আহত অবস্থায় তাঁকে বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাস্থলে পৌঁছে তৃণমূল নেতা সওকত মোল্লা বলেন, এর পর কারও গায়ে হাত দিলে পালটা মার হবে।

অভিযোগ, মঙ্গলবার সকালে মধ্য ঘটকপুরে ISF কর্মীদের বিরুদ্ধে তৃণমূলের পতাকা ছেঁড়ার অভিযোগ ওঠে। প্রতিবাদ করেন তৃণমূল কর্মীরা। তখন তাদের মাধর করে ISF কর্মীরা। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যান আইনাল সাহেব। সেখানে পৌঁছতেই তাকে বেধড়ক মারধর শুরু করে ISF সমর্থকরা। লাঠি-সোটা দিয়ে পেটানো হয় তাঁকে। আহত আইনাল সাহেবকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন তৃণমূল কর্মীরা।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছন ক্যানিং পূর্বের তৃণমূল বিধায়ক সওকত মোল্লা। তিনি বলেন, ‘ধর্মব্যবসায়ীরা এখানে অশান্তি করার চেষ্টা করছে। আমরা শান্তি চাই। আজ আমাদের এক প্রবীণ নেতাকে মেরেছে। কিন্তু এর পর যদি আমাদের কর্মীদের গায়ে হাত পড়ে তাহলে পালটা মার হবে।’ এব্যাপারে ISF-এর প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

ঘটনার পর দিনভর এলাকা ছিল থমথমে। বেশ কয়েকজন ISF কর্মীর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে তৃণমূল।

 

বন্ধ করুন