বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ব্যান্ডেল স্টেশনে ভিড়ে ভরা লোকাল ট্রেন থেকে আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেফতার পাচারকারী
ব্যান্ডেল জংশন। ফাইল ছবি

ব্যান্ডেল স্টেশনে ভিড়ে ভরা লোকাল ট্রেন থেকে আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেফতার পাচারকারী

  • পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃতের নাম ওয়াসিম আক্রম। বিহার থেকে অস্ত্রপাচারে যুক্ত সে। বিহার থেকে অস্ত্র নিয়ে কলকাতায় যাচ্ছে বলে এসটিএফের কাছে খবর পৌঁছয়। এর পর সাধারণ পোশাকে ট্রেনে তল্লাশি শুরু করেন গোয়েন্দারা।

বিহার থেকে কলকাতায় অস্ত্রপাচারের পথে ব্যান্ডেল স্টেশনে গ্রেফতার এক পাচারকারী। সোমবার সকালে এই ঘটনায় স্টেশনে নিত্যযাত্রীদের মধ্যে চাঞ্চল্য ছড়ায়। ওয়াসিম আখতার নামে ওই অস্ত্রপাচারকারীর থেকে ৩টি সেভেন এমএম পিস্তল ও ৩৫টি কার্তুজ উদ্ধার করেছে এসটিএফ। ধৃত ব্যক্তি অস্ত্র নিয়ে কোথায় যাচ্ছিল তাও জানার চেষ্টা করছেন গোয়েন্দারা।

সোমবার সকালে হাওড়ামুখি বর্ধমান লোকাল ব্যান্ডেল স্টেশনে ঢুকতেই একটি কামরায় জানলার ধারে বসে থাকা এক ব্যক্তিকে ঘিরে ধরেন কয়েকজন। এসটিএফ আধিকারিকরা সাধারণ পোশাকে থাকায় তখন কিছু বুঝতে পারেননি অন্য যাত্রীরা। এর পর ওই ব্যক্তিকে কয়েকটি প্রশ্ন করেন গোয়েন্দারা। তার পর একজন পকেট থেকে হাতকড়া বার করে পরিয়ে দেন তার হাতে। তার সিটের নীচে থাকা ব্যাগ থেকে উদ্ধার হয় ৩টি সেভেন এমএম পিস্তল ও ৩৫টি কার্তুজ। ভিড় ট্রেনে ব্যাগের মধ্যে অস্ত্র দেখে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন যাত্রীরা। তাঁদের আশ্বস্ত করেন এসটিএফের গোয়েন্দারা।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃতের নাম ওয়াসিম আক্রম। বিহার থেকে অস্ত্রপাচারে যুক্ত সে। বিহার থেকে অস্ত্র নিয়ে কলকাতায় যাচ্ছে বলে এসটিএফের কাছে খবর পৌঁছয়। এর পর সাধারণ পোশাকে ট্রেনে তল্লাশি শুরু করেন গোয়েন্দারা। তল্লাশি চলাকালীনই মেলে সাফল্য।

ধৃত কার কাছ থেকে অস্ত্র নিয়ে কোথায় যাচ্ছিল, কে তাকে অস্ত্র সরবরাহের বরাত দিয়েছিল তা জানার চেষ্টা চলছে। পুলিশ সূত্রে খবর, রাজ্যে বিহারের অস্ত্রের চাহিদা বেশ ভালো। বিহারে তৈরি অস্ত্রের দাম কিছুটা বেশি হলেও গুণমান রাজ্যে তৈরি অস্ত্রের থেকে অনেক ভালো। তাই দাগী অপরাধীরা বিহারের অস্ত্রেই ভরসা করে।

 

বন্ধ করুন