বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘আমরা নির্দিষ্ট সময় স্কুলে এলে শিক্ষকদেরও আসতে হবে’ বিক্ষোভ ছাত্রীদের
‘আমরা নির্দিষ্ট সময়ে স্কুলে আসলে শিক্ষিকাদেরও আসতে হবে’ বিক্ষোভ ছাত্রীদের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে পিটিআই)

‘আমরা নির্দিষ্ট সময় স্কুলে এলে শিক্ষকদেরও আসতে হবে’ বিক্ষোভ ছাত্রীদের

  • অবশেষে পুলিশ এসে তাদের বুঝিয়ে অবরোধ তুলে দেয়। শতাধিক ছাত্রী শুক্রবার এই বিক্ষোভ অবরোধ অংশগ্রহণ করে।

অভিনব দাবিতে বিক্ষোভ দেখাল দক্ষিণ দিনাজপুর গঙ্গারামপুর গার্লস স্কুলের ছাত্রীরা। স্কুলে শিক্ষিকাদের নির্দিষ্ট সময়ে স্কুলে ঢোকার দাবিতে কার্যত স্কুলের গেটে তালা লাগিয়ে দিয়ে এবং পথ অবরোধ করে বিক্ষোভ করে চারি ও তাদের অভিভাবকরা। দীর্ঘক্ষণ ধরে চলে অপরাধ। অবশেষে পুলিশ এসে তাদের বুঝিয়ে অবরোধ তুলে দেয়। প্রায় শতাধিক ছাত্রী শুক্রবার এই বিক্ষোভ অবরোধ অংশগ্রহণ করে।

ছাত্রীদের অভিযোগ, ‘করোনা পরিস্থিতির আগে স্কুলে নোটিশ দিয়ে জানানো হয়েছিল যে ছাত্রীদের সকাল ১০ টা ৪০ মিনিটের মধ্যে স্কুলে ঢুকে পড়তে হবে। কিন্তু, করোনা পরিস্থিতি কেটে যাওয়ার পর নতুন করে এবছর নোটিশ দিয়ে জানানো হয় সকাল ১০ টা ৫০ মিনিটের মধ্যে ছাত্রীদের স্কুলে প্রবেশ করতে হবে। আমরা সেইমতো সকাল ১০ টা ৪৫ মিনিটের মধ্যে স্কুলে চলে আসছি। তার পরেও স্কুলের ম্যাডামরা আমাদের স্কুলে ঢুকতে দিচ্ছেন না। যার ফলে আমরা ক্লাস করতে পারছিনা। তার ওপর নির্দিষ্ট কোনও রুটিনও দেওয়া হয়নি। প্রতিদিন স্কুলে আসতে হচ্ছে একগুচ্ছ বই নিয়ে।’

তাদের বক্তব্য, ‘আমরা নির্দিষ্ট সময়ে স্কুলে আসলেও ম্যাডামরা নির্দিষ্ট সময়ে স্কুলে আসছেন না। কেউ আসছেন সাড়ে ১১ টায়, আবার কেউ ১২ টায় স্কুলে আসছেন। ছাত্রীদের সাফ কথা, ‘যদি আমাদের স্কুলে প্রবেশের ক্ষেত্রে নির্দিষ্ট সময় থাকে তাহলে ম্যাডামদের জন্যও একই নিয়ম হতে হবে।’ এই দাবীতে স্কুলের গেটে তালা লাগিয়ে বিক্ষোভ করেন ছাত্রী এবং অভিভাবকরা। পরে তারা গঙ্গারামপুর-তপন রাজ্য সড়ক অবরোধ করে। যদিও গঙ্গারামপুর হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা জানান, ‘কোনও ছাত্রী দেরি আসলে আমি নিজে তাদের সঙ্গে কথা বলি।’

বন্ধ করুন