বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > BJP: বেসুরো অর্জুনকে নিয়ে মুখ খুললেন সুকান্ত, নাম না করে তোপ দলের রাজ্য সভাপতির
সুকান্ত মজুমদার। ফাইল চিত্র

BJP: বেসুরো অর্জুনকে নিয়ে মুখ খুললেন সুকান্ত, নাম না করে তোপ দলের রাজ্য সভাপতির

  • এ প্রসঙ্গে আগামী দিনে ভোটের কথা মাথায় রেখে এগিয়ে যাওয়া উচিত বলে বার্তা দিয়েছেন সুকান্ত মজুমদার। তাঁর বক্তব্য, ‘মাটি খুঁড়ে পুরনো জিনিস বের করলে সমস্যার সমাধান হয় না বরং সমস্যা আরও বাড়ে।’

রাজনীতিতে এখন জোর চর্চা বারাকপুরের বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংকে নিয়ে। গতকাল তিনি বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডার সঙ্গে বৈঠক করেছেন। তার আগে অবশ্য নিজেই সাংবাদিক বৈঠক ডেকে বিজেপি নেতাদের একাংশের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দিয়েছিলেন তিনি। রাজ্য বিজেপি নেতাদের যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন তোলার পাশাপাশি শুধু সোশ্যাল মিডিয়ায় সংগঠন চালানো বলে অভিযোগ তুলেছিলেন। এ নিয়ে এবার মুখ খুললেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার। বেসুরো অর্জুন সিংকে নিয়ে দল যে একেবারে সন্তুষ্ট নয় তা বুঝিয়ে দিলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি।

নাম না করে অর্জুনের পাল্টা জবাব দিয়ে সুকান্ত মজুমদার বলেছেন, ‘বিজেপি সোশ্যাল মিডিয়ায় নেই। আমাদের দলের একটি নির্দিষ্ট পদ্ধতি আছে। সেইমতোই দল চলছে। আমরা ব্লকে ব্লকে আন্দোলন মিছিল করছি। ওনার সমস্যা থাকলে উনি উচ্চ নেতৃত্বকে বিষয়টি জানাতে পারেন।’ দলের নেতাদের বিরুদ্ধে অর্জুন সিং যেভাবে বিস্ফোরক হয়েছেন তা দল যে ভালো চোখে দেখছে না, বুঝিয়ে দেন সুকান্ত। অর্জুন সিং অভিযোগ করেছিলেন, দলের অযোগ্য নেতারাই দল চালাচ্ছে। 

আসানসোল, বালিগঞ্জ উপনির্বাচনে বিজেপি হেরে যাওয়ার পরে দেখা গিয়েছিল অমিতাভ গোষ্ঠীর বিরুদ্ধে তোপ দেগেছিলেন দলের কেন্দ্রীয় সম্পাদক অনুপম হাজরা থেকে শুরু করে সাংসদ সৌমিত্র খাঁ। আর তারপরেই বেসুরো হয়ে যান অর্জুন সিং। মূলত পাট শিল্পকে বাঁচানোর জন্যই তিনি কেন্দ্রের বিরুদ্ধে সরব হলেও সে ক্ষেত্রে তার তৃণমূলে যোগ দেওয়ার জল্পনা শুরু হয়েছে। দলীয় সূত্রে খবর, কিছুদিন আগেই বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী অর্জুনের সঙ্গে বৈঠক করে দল না ছাড়ার অনুরোধ জানিয়েছিলেন। কিন্তু, তারপরেই দলের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক মন্তব্য করেন অর্জুন সিং।

এর পাশাপাশি ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনেও তাকে হারানোর চক্রান্ত করা হয়েছিল বলেও অর্জুনের অভিযোগ। এ প্রসঙ্গে আগামী দিনে ভোটের কথা মাথায় রেখে এগিয়ে যাওয়া উচিত বলে বার্তা দিয়েছেন সুকান্ত মজুমদার। তাঁর বক্তব্য, ‘মাটি খুঁড়ে পুরনো জিনিস বের করলে সমস্যার সমাধান হয় না বরং সমস্যা আরও বাড়ে।’

বন্ধ করুন