বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > TMC: ‘টাকার বিনিময়ে দলের নতুন সাংগঠনিক পদের দায়িত্ব’, বিস্ফোরক TMC নেতা
সভায় বক্তব্য রাখছেন তৃণমূল নেতা দুর্গাদাস বন্দোপাধ্যায়। নিজস্ব ছবি

TMC: ‘টাকার বিনিময়ে দলের নতুন সাংগঠনিক পদের দায়িত্ব’, বিস্ফোরক TMC নেতা

  • মেজিয়ার একটি বেসরকারি ম্যারেজ হলে এক সাংগঠনিক আলোচনা সভায় প্রকাশ্যে দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দেন ওই তৃণমূল নেতা। তিনি বলেন, ‘চক্রান্ত করে মেজিয়া ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের সংগঠনকে শেষ করতে টাকার বিনিময়ে জেলা এমনকি রাজ্যস্তরের তৃণমূল নেতৃত্ব অযোগ্য মানুষজনদের এই দায়িত্ব দিয়েছে।’

এসএসসি দুর্নীতি এবং গরু পাচারকাণ্ড নিয়ে অস্বস্তিতে রয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস। দলের স্বচ্ছ ভাবমূর্তি ফেরাতে বেশ কয়েক দিন ধরেই জেলায় জেলায় ব্লক স্তরে সাংগঠনিক পদে রদবদল করছে তৃণমূল কংগ্রেস। এই নিয়ে তৃণমূল কর্মীদের মধ্যে অসন্তোষ দানা বেঁধেছে। আর সেই অসন্তোষের মধ্যেই টাকার বিনিময়ে তৃণমূলে নতুন সাংগঠনিক পদের দায়িত্ব দেওয়া হচ্ছে বলে বিস্ফোরক অভিযোগ তুললেন তৃণমূলের এক নেতা। বাঁকুড়া জেলার মেজিয়া ব্লকে টাকার বিনিময়ে সাংগঠনিক পদের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে বলে বিস্ফোরক অভিযোগ এনেছেন সেখানকার তৃণমূল নেতা দুর্গাদাস বন্দ্যোপাধ্যায়।

মেজিয়ার একটি বেসরকারি ম্যারেজ হলে এক সাংগঠনিক আলোচনা সভায় প্রকাশ্যে দলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন ওই তৃণমূল নেতা। তিনি বলেন, ‘চক্রান্ত করে মেজিয়া ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের সংগঠনকে শেষ করতে টাকার বিনিময়ে জেলা এমনকি রাজ্যস্তরের তৃণমূল নেতৃত্ব অযোগ্য মানুষজনদের এই দায়িত্ব দিয়েছে। এর বিরুদ্ধে আমাদের লড়াই আন্দোলন জারি থাকবে। এটা কি ছেলে খেলা হচ্ছে। যাকে তাকে পোস্ট দিয়ে দেব!’ কর্মীসভায় প্রকাশ্যে এই প্রতিক্রিয়া উঠে আসতেই গোষ্ঠী কোন্দলের তত্ত্ব উঠে আসছে।

যদিও মেজিয়া পঞ্চায়েত সমিতির সহ-সভাপতি রবিলোচন গোপ টাকা নেওয়ার বিষয়ে মন্তব্য করেননি। তবে সাংগঠনিক পদে রদবদল নিয়ে তৃণমূল নেতৃত্বের বিরুদ্ধে দিয়েছেন। তার বক্তব্য, ‘যাদের কোনওদিন তৃণমূল করতে দেখা যায়নি তাদেরকেই সাংগঠনিক পদে আনা হয়েছে।’ অন্যদিকে, মেজিয়া ব্লক তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি জন্মেজয় বাউরী এ নিয়ে সংবাদমাধ্যমের সামনে মুখ খোলেননি। তিনি বলেন, ‘আমার উপরে জেলা রয়েছে, আমার উপরে রাজ্য রয়েছে। তারাই এর উত্তর দেবেন। টাকা নেওয়ার যে অভিযোগ উঠেছে সে সম্পর্কে আমি কিছু বলতে পারব না।’

বন্ধ করুন