বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Sunmarg Chitfund: চিটফান্ড কাণ্ডে হাজিরার জন্য সিবিআইয়ের কাছে ১৫ দিন সময় চাইলেন সুবোধ
বিধায়ক সুবোধ অধিকারী।

Sunmarg Chitfund: চিটফান্ড কাণ্ডে হাজিরার জন্য সিবিআইয়ের কাছে ১৫ দিন সময় চাইলেন সুবোধ

  • আইনজীবী মারফত তিনি জানিয়ে দিয়েছেন, এখনই তিনি হাজিরা দিতে পারবেন না। হাজিরা দেওয়ার জন্য ১৫ দিন সময় চেয়েছেন বিজপুরের তৃণমূল বিধায়ক। আইনজীবী মারফত চিঠি দিয়ে তিনি জানান, সানমার্ক চিটফান্ড মামলায় তার কাছে যে তথ্য জানতে চাওয়া হয়েছে এত কম সময়ের মধ্যে তা সংগ্রহ করা সম্ভব নয়।

আজ সিবিআই দফতরে হাজিরা দিলেন না বীজপুরের তৃণমূল বিধায়ক সুবোধ অধিকারী। চিটফান্ড মামলায় হালিশহর পুরসভার চেয়ারম্যান রাজু সাহানির সঙ্গে তার যোগ থাকার অভিযোগ রয়েছে। তারপরেই তাকে জিজ্ঞাসা করার জন্য ডেকে পাঠাই সিবিআই।

আজ মঙ্গলবার তার সিবিআই দফতরে হাজিরা দেওয়ার কথা ছিল। তবে আইনজীবী মারফত তিনি জানিয়ে দিয়েছেন, এখনই তিনি হাজিরা দিতে পারবেন না। হাজিরা দেওয়ার জন্য ১৫ দিন সময় চেয়েছেন বিজপুরের তৃণমূল বিধায়ক। আইনজীবী মারফত চিঠি দিয়ে তিনি জানান, সানমার্গ চিটফান্ড মামলায় তার কাছে যে তথ্য জানতে চাওয়া হয়েছে এত কম সময়ের মধ্যে তা সংগ্রহ করা সম্ভব নয়। তাই ১৫ দিন সময় চেয়েছেন সুবোধ অধিকারী। হালিশহর পুরসভার চেয়ারম্যান রাজু সাহানি গ্রেফতার হওয়ার পরে সুবোধের একাধিক ফ্ল্যাটে এবং বাড়িতে তল্লাশি চালায় সিবিআই। সিবিআই সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই বাড়িতে তল্লাশি চালিয়ে একাধিক গুরুত্বপূর্ণ নথি পেয়েছেন তদন্তকারীরা।

উল্লেখ্য, রাজু গ্রেফতারের পরেই সুবোধ অধিকারী স্বীকার করে নিয়েছিলেন যে তার সঙ্গে রাজু সাহনির বন্ধুত্ব রয়েছে। তিনি বলেছিলেন, ‘রাজু সাহানি আমার ভালো বন্ধু। কিন্তু আত্মীয় নয়। তাই সবটা জানা সম্ভব নয়। যদি কেউ দোষ করে থাকে তাহলে শাস্তি পাবে।’ তিনি এআরও বলেছিলেন, ‘রাজুর সাথে আমার খুব ঘনিষ্ঠ বন্ধুত্বের সম্পর্ক ছিল। তার জন্য আমার বাড়িতে তল্লাশি চালিয়েছে সিবিআই।’ পাশাপাশি চিটফান্ড কাণ্ডের নিন্দা করেছিলেন সুবোধ। সেইসঙ্গে সিবিআইকে সমস্ত রকমের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছিলেন।

বন্ধ করুন