বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘‌চ্যালেঞ্জ করলাম আপনাকে আড়াই লাখ ভোটে হারাব’‌, রাজ্যপালকে তোপ কল্যাণের
তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)
তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)

‘‌চ্যালেঞ্জ করলাম আপনাকে আড়াই লাখ ভোটে হারাব’‌, রাজ্যপালকে তোপ কল্যাণের

  • এমনকী তাঁকে বিজেপির টিকিটে নির্বাচনে দাঁড়াতে বলে হারাবার চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেন।

সংঘাত লেগেছে হাওড়া পুরসভার সংশোধনী বিল নিয়ে। তাতে নবান্ন–রাজভবন দ্বৈরথ শুরু হয়েছে বাংলায়। এই পরিস্থিতিতে রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড়কে প্রকাশ্যেই বিজেপির ক্যাডার বলে আক্রমণ করলেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। এমনকী তাঁকে বিজেপির টিকিটে নির্বাচনে দাঁড়াতে বলে হারাবার চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দেন। তৃণমূল কংগ্রেসের প্রতিষ্ঠা দিবসে হাওড়ার ডোমজুড়ের দলীয় অনুষ্ঠান থেকে রাজ্যপালকে তুলোধনা করেন এই আইনজীবী–সাংসদ।

ইতিমধ্যেই রাজ্যপাল জগদীপ ধনখড় একটি টুইট করে হাওড়া পুরসভার সংশোধনী বিল নিয়ে রাজ্যের অ্যাডভোকেট জেনারেলের সঙ্গে আলোচনা করতে চেয়েছেন। এমনকী সব নথি দেখাতে নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। তাই এবার রাজ্যপালকে নিশানা করলেন তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। আর সাংসদের এই মন্তব্যে এখন শোরগোল পড়ে গিয়েছে।

ঠিক কী বলেছেন কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়?‌ এদিন তিনি বলেন, ‘‌পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপালের দিকে তাকিয়ে দেখুন। তাহলেই বুঝতে পারবেন তিনি বিজেপির ক্যাডার। সে প্রমাণ তিনি নিজেই দিচ্ছেন। একটা রাজ্যের রাজ্যপাল বিজেপির চাকরবাকরের পর্যায়ে চলে গিয়েছে। রাজ্যপাল নামের লজ্জা। আপনার লজ্জা লাগে না একটা পার্টির ক্যাডারের মতো আচরণ করতে?‌ আপনি ইচ্ছাকৃতভাবে হাওড়ার পুরসভা নির্বাচন করতে দিচ্ছেন না।’‌ এখানে তিনি এভাবে আক্রমণ করেছেন বলে জোর চর্চা শুরু হয়েছে।

এরপর তিনি রাজ্যপালকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিয়ে বলেন, ‘‌আপনি কোন অধিকারে এবং কীসের জোরে বিলটিকে আটকে রেখেছেন।‌ প্রতি মুহূর্তে আপনি ভারতের সংবিধানকে অস্বীকার করছেন। রাজনীতি করার ইচ্ছা থাকলে, পদ ছেড়ে দিয়ে রাজনীতি করুন। আগামী লোকসভায় বিজেপির টিকিটে শ্রীরামপুর কেন্দ্র থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে দেখান। আমি চ্যালেঞ্জ করলাম আপনাকে আড়াই লাখ ভোটে হারাব।’‌

বন্ধ করুন