বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > বন্ধ স্কুলে বাসা বেঁধেছিল জোড়া চন্দ্রবোড়া,স্কুল খুলতেই আঁতকে উঠল ছাত্ররা
স্কুল চত্বর থেকে উদ্ধার বিশাল আকৃতির জোড়া চন্দ্রবোড়া (প্রতীকী ছবি)
স্কুল চত্বর থেকে উদ্ধার বিশাল আকৃতির জোড়া চন্দ্রবোড়া (প্রতীকী ছবি)

বন্ধ স্কুলে বাসা বেঁধেছিল জোড়া চন্দ্রবোড়া,স্কুল খুলতেই আঁতকে উঠল ছাত্ররা

  • আরও সাপ স্কুলের মধ্যে রয়েছে কি না তা নিয়ে সংশয় থেকেই গিয়েছে।

করোনার দাপটে দীর্ঘদিন বন্ধ ছিল স্কুল। পড়ুয়াদের আনাগোনা ছিল না। এদিকে সরকারি নির্দেশে সম্প্রতি স্কুল খুলে গিয়েছে। পড়ুয়ারাও আসতে শুরু করেছে। এসবের মধ্যেই মুর্শিদাবাদের কাঞ্চনতলা এলাকায় জেডিজে ইনস্টিটিউশন চত্বরে উদ্ধার হল পরপর দুটি চন্দ্রবোড়া সাপ। স্কুল চত্বরেই ডেরা নিয়েছিল বিষধর দুটি সাপ। পড়ুয়ারাই প্রথম দেখতে পায় কিছু একটি নড়াচড়া করছে। এরপর তারা বুঝতে পারে বিশাল আকৃতির একটি সাপ রয়েছে। পড়ুয়াদের চিৎকারে শিক্ষকরাও ছুটে আসেন। এরপর বনদফতরে খবর দেওয়া হয়। বনদফতরের কর্মীরা এসে একটি নয়, পরপর দুটি চন্দ্রবোড়া সাপ উদ্ধার করে।

 তবে বনদফতর সাপ দুটিকে নিয়ে যাওয়ার পরে কিছুটা হলেও স্বস্তি পেয়েছে স্কুল কর্তৃপক্ষ। তবে আরও সাপ স্কুলের মধ্যে রয়েছে কি না তা নিয়ে সংশয় থেকেই গিয়েছে। স্কুল কর্তৃপক্ষের দাবি অনেকদিন স্কুল বন্ধ ছিল। এর জেরে নির্জন জায়গায় বাসা বেঁধেছিল সাপগুলি। তবে আর সাপ রয়েছে কি না তা বনদফতর খতিয়ে দেখছে। এদিকে বাসিন্দাদের আশঙ্কা, স্কুলের বিভিন্ন অংশেই ছাত্রদের যাতায়াত রয়েছে। সাপ দুটি উদ্ধার করা না হলে বড় বিপদ হয়ে যেতে পারত। 

স্কুলের প্রধান শিক্ষক আব্দুল হাই মাসুদ রানা রহমান জানিয়েছেন, আমাদের ধারণা দীর্ঘদিন ধরেই সাপগুলি স্কুলে বাসা বেঁধেছিল। স্কুল বন্ধ থাকায় কারোর নজরে পড়েনি। এদিকে সাপ দুটিকে বাগদাবড়া ফরেস্টে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। বনদফতরের আধিকারিক প্রভাসচন্দ্র মণ্ডল বলেন, দুটি সাপই পূর্ণবয়স্ক।একটি চার ফুট লম্বা ও অপরটি পাঁচ ফুট লম্বা। 

 

বন্ধ করুন