বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > নিশীথের পদত্যাগে ঘুরিয়ে খোঁচা উদয়নের, বললেন আবার ভোটে লড়তে রাজি
উদয়ন গুহ। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)
উদয়ন গুহ। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)

নিশীথের পদত্যাগে ঘুরিয়ে খোঁচা উদয়নের, বললেন আবার ভোটে লড়তে রাজি

  • তিনি বলেন, ‘কবে আবার ভোট হবে জানি না। এতদিন বিধায়কের সই দরকার হলে মানুষ কোথায় যাবেন তাও জানা নেই।’

বিধানসভা ভোটে জয়লাভ করলেও শপথ নেননি তিনি। সাংসদ পদ ধরে রাখতে দিনহাটার বিধায়ক পদে ইস্তফা দিয়েছেন নিশীথ প্রামাণিক। আর তার পরই তাঁকে বিঁধলেন ওই কেন্দ্রের পরাজিত প্রার্থী তৃণমূলের উদয়ন গুহ। তার সোজাসাপটা প্রশ্ন, ‘ও দাঁড়ালই বা কেন, আর ইস্তফাই বা দিল কেন।’

এমনিতেই দিনহাটায় রাজনৈতিক সংঘর্ষ লেগেই থাকে। বিধানসভা নির্বাচনে ৫৭ ভোটে নিশীথ প্রামাণিকের জয়ের পর সেই হিংসা চরমে পৌঁছয়। দিনহাটার রাস্তায় মেরে উদয়ন গুহর হাত ভেঙে দেয় দুষ্কৃতীরা। তার পর কলকাতায় চিকিৎসা করিয়ে বৃহস্পতিবার দিনহাটায় ফিরেছেন উদয়নবাবু। 

ওদিকে বুধবার বিধায়ক পদে ইস্তফা দিয়েছেন নিশীথ অধিকারী। ফলে দিনহাটায় উপ-নির্বাচন আসন্ন। একই কারণে জগন্নাথ সরকার ইস্তফা দেওয়ায় উপ – নির্বাচন হবে শান্তিপুরে। কিন্তু দিনহাটায় বিধায়ক না থাকায় উদ্বিগ্ন উদয়নবাবু। 

তিনি বলেন, ‘কবে আবার ভোট হবে জানি না। এতদিন বিধায়কের সই দরকার হলে মানুষ কোথায় যাবেন তাও জানা নেই।’ তাঁর কথায়, ‘আমরা বলেছিলাম, ও জিতলে লোকসভা অথবা বিধানসভা একটা উপনির্বাচন হবেই।’ উদয়নবাবুর আক্ষেপ, ‘ও দাঁড়ালই বা কেন? আর জিতে ১০ দিনের মধ্যে ইস্তফাই বা দিল কেন?’

তিনি বলেন, ‘আমার সবে অস্ত্রোপচার হয়েছে। চিকিৎসক ফিট ঘোষণা করলে দলের সঙ্গে কথা বলে পরবর্তী পদক্ষেপ করবো। দল আবার টিকিট দিলে ভোটে লড়তেই রাজি আমি।’

বলে রাখি, বিধানসভা নির্বাচনে রাজ্যের ৪ সাংসদকে টিকিট দিয়েছিল বিজেপি। তার মধ্যে দিনহাটা ও শান্তিপুরে জিতেছেন বিজেপি সাংসদেরা। চুঁচুড়ায় হেরেছেন লকেট আর টালিগঞ্জে হেরেছেন বাবুল।

 

বন্ধ করুন