কলকাতা সফরে এসে বেলুড় মঠে যাবেন মোদী (ফাইল ছবি, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)
কলকাতা সফরে এসে বেলুড় মঠে যাবেন মোদী (ফাইল ছবি, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

'স্বামী আত্মস্থানন্দের অনুপস্থিতিতে রামকৃষ্ণ মিশনে যাওয়া অকল্পনীয়', টুইট মোদীর

  • ছেলেবেলা থেকেই নিয়মিত রাজকোটের রামকৃষ্ণ মিশনে যেতেন মোদী। সন্ন্যাস হবেন বলে মনস্থির করে ফেলেন।

বরাবরই রামকৃষ্ণ মিশনে সময় কাটাতে পছন্দ করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এসেছেন বেলুড় মঠেও। এবারও যাবেন সেখান। তবে দেখা হবে না স্বামী আত্মস্থানন্দের সঙ্গে। সেজন্য রামকৃষ্ণ মিশনের মতো ‘বিশেষ’ স্থানে কিছু একটা যেন ফাঁকা ফাঁকা লাগবে বলে জানালেন মোদী।

ছেলেবেলা থেকেই নিয়মিত রাজকোটের রামকৃষ্ণ মিশনে যেতেন মোদী। সন্ন্যাস হবেন বলে মনস্থির করে ফেলেন। যদিও রাজকোটে রামকৃষ্ণ মিশনের তৎকালীন সচিব স্বামী আত্মস্থানন্দ পরামর্শ দেন, মোদীর জন্য সন্ন্যাস জীবন নয়। বরং জনগণের মধ্যে থেকেই মোদীর কাজ করা উচিত। স্বামী আত্মস্থানন্দের পরামর্শ মতো সন্ন্যাস গ্রহণ করেননি মোদী।

আরও পড়ুন : 'বাংলা সফরের জন্য উত্তেজিত', টুইট মোদীর

তবে সেজন্য স্বামী আত্মস্থানন্দ ও রামকৃষ্ণ মিশনের সঙ্গে মোদীর যোগাযোগ ছিন্ন হয়নি। বেলুড় মঠে স্বামী আত্মস্থানন্দের সঙ্গে দেখাও করেছিলেন। ২০১৪ সালে লোকসভা ভোটে বিপুল জয়ের পর মোদীকে আশীর্বাদ করেছিলেন স্বামী আত্মস্থানন্দ। শপথ গ্রহণের দিনে রামকৃষ্ণ মিশনের ফুলও পৌঁছেছিল তাঁর কাছে।

এবার কলকাতা সফরে এসে বেলুড় মঠে যাচ্ছেন মোদী। এনিয়ে আজ টুইটারে মোদী লেখেন, 'রামকৃষ্ণ মিশনে সময় কাটাব বলে আমি আনন্দিত, তাও স্বামী বিবেকানন্দের জয়ন্তীর সময়। জায়গাটি বিশেষ।' তবে স্বামী আত্মস্থানন্দের মৃত্যুতে শূন্যস্থান তৈরি হয়েছে বলে আক্ষেপ করেন মোদী। একটি টুইট বার্তায় তিনি বলেন, 'তবুও সেখানে শূন্যস্থান থাকবে। 'সেবা সেবাই হল প্রভু সেবা'-র মন্ত্রে যে স্বামী আত্মস্থানন্দজি আমায় দীক্ষিত করেছিলেন তিনিই নেই সেখানে। রামকৃষ্ণ মিশনে গিয়ে তাঁর সান্নিধ্য না পাওয়া অকল্পনীয়।'

বন্ধ করুন