বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > উত্তর দিনাজপুর: গাছ বসিয়েও কাটমানি? ছাগলের ঘাড়ে দায় চাপিয়ে দিল তৃণমূল
বনসৃজন নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগ রায়গঞ্জে। প্রতীকী ছবি (AP Photo) (AP)

উত্তর দিনাজপুর: গাছ বসিয়েও কাটমানি? ছাগলের ঘাড়ে দায় চাপিয়ে দিল তৃণমূল

  • বিজেপি নেতৃত্বের দাবি, তৃণমূল কাটমানি খেয়েছে। আর এখন সব দায় ছাগলের ঘাড়ে চাপিয়ে দিচ্ছে। কোথায় গাছের দেখা নেই। আসলে ওরা লোক দেখানো কিছু গাছ বসিয়ে সরকারি টাকা পকেটে ভরে নিয়েছে। এখন চেপে ধরতেই ছাগল গরুর কথা বলছে। গাছ বাঁচানোর কেন চেষ্টা করল না?

লাইন দিয়ে গাছ বসানো হয়েছিল। সবটাই সরকারি প্রকল্পের আওতায়। এজন্য প্রায় ২২ লক্ষ টাকা খরচও হয়ে গিয়েছে বলে সরকারি খাতায় দাবি করা হয়। কিন্তু কোথায় গেল গাছ? প্রশ্ন তুলেছেন বিরোধীরা। উত্তর দিনাজপুরের শীতগ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায় ঘটনা। বিজেপি নেতৃত্বের দাবি গাছ বসানোর প্রকল্পের লক্ষ লক্ষ টাকা পকেটে ঢুকিয়ে ফেলেছেন তৃণমূলের নেতারা। এখন ছাগলের ঘাড়ে দোষ চাপিয়ে নিজেরা বাঁচার চেষ্টা করছেন। দাবি বিরোধীদের।

সূত্রের খবর এই পঞ্চায়েত এলাকার বিভিন্ন সংসদে ২০২০-২১ অর্থবর্ষে গাছ বসানো হয়েছিল। এদিকে বাসিন্দাদের একাংশের দাবি, সেই সময় কিছু গাছ বসাতে দেখা গিয়েছিল। কিন্তু সেগুলি পরবর্তী সময়ে কোনও যত্নই করা হয়নি। পাশাপাশি একাধিক জায়গায় গাছ না বসিয়েই খাতায় কলমে দেখানো হয়েছিল। তবে বর্তমানে বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই সেই গাছের আর কোনও অস্তিত্ব নেই।

বিজেপি নেতৃত্বের দাবি, তৃণমূল কাটমানি খেয়েছে। আর এখন সব দায় ছাগলের ঘাড়ে চাপিয়ে দিচ্ছে। কোথায় গাছের দেখা নেই। আসলে ওরা লোক দেখানো কিছু গাছ বসিয়ে সরকারি টাকা পকেটে ভরে নিয়েছে। এখন চেপে ধরতেই ছাগল গরুর কথা বলছে। গাছ বাঁচানোর কেন চেষ্টা করল না?

এদিকে শীতগ্রাম পঞ্চায়েতের উপপ্রধান নবকান্ত বর্মনের দাবি, অধিকাংশ গাছ নষ্ট হয়ে গিয়েছে। তবে কয়েকটি গাছ আছে। সঠিক রক্ষণাবেক্ষণ করা যায়নি। মনে হচ্ছে মজবুত বেড়া না থাকায় ছাগল গরুতে খেয়ে নিয়েছে।

বন্ধ করুন