বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > WB HS 2022 Topper: ‘পথশিশুদের জন্য কাজ করতে চাই’, উচ্চমাধ্যমিকে প্রথম হয়ে মনের কথা জানালেন অদিশা
এবার উচ্চমাধ্যমি পরীক্ষায় প্রথম স্থানাধিকারী হন কোচবিহারের দিনহাটা সোনিদেবী জৈন হাইস্কুলের ছাত্রী অদিশা দেবশর্মা

WB HS 2022 Topper: ‘পথশিশুদের জন্য কাজ করতে চাই’, উচ্চমাধ্যমিকে প্রথম হয়ে মনের কথা জানালেন অদিশা

  • WB HS Topper: এবার উচ্চমাধ্যমি পরীক্ষায় প্রথম স্থানাধিকারী হন কোচবিহারের দিনহাটা সোনিদেবী জৈন হাইস্কুলের ছাত্রী অদিশা দেবশর্মা। ৫০০ নম্বরের মধ্যে মোট ৪৯৮ পেয়েছেন অদিশা। শতাংশের নিরিখে অদিশার প্রাপ্ত নম্বর ৯৯.৬ শতাংশ।

এবার উচ্চমাধ্যমি পরীক্ষায় প্রথম স্থানাধিকারী হন কোচবিহারের দিনহাটা সোনিদেবী জৈন হাইস্কুলের ছাত্রী অদিশা দেবশর্মা। ৫০০ নম্বরের মধ্যে মোট ৪৯৮ পেয়েছেন অদিশা। শতাংশের নিরিখে অদিশার প্রাপ্ত নম্বর ৯৯.৬ শতাংশ। আর এত নম্বর পেয়ে অদিশার বক্তব্য, ‘সবার মুখ উজ্জ্বল করতে পেরেছি।’ উচ্চমাধ্যমিকে প্রথম হওয়ার পরই সংবাদমাধ্যমকে অদিশা জানান, তাঁর দাদু চিরকাল চাইতেন যে নাতি এমন ফল করবে যাতে বাড়িতে টিভি-প্রেসের ছড়াছড়ি হয়। দাদুর সেই ‘ইচ্ছা’ পূরণ করতে পেরে আজ অদিশার মুখে শুধুই হাসি।

অদিশা জানান, পড়াশোনার পাশাপাশি নাচ, গান, আঁকা, আবৃত্তিতেও তাঁর আগ্রহ অনেক। উচ্চমাধ্যমিকের পড়াশোনার পাশাপাশি নাকি চলে তাঁর নাচ আর আবৃত্তির ফোর্থ ইয়ার। পাশাপাশি অদিশা গিটারও শিখছেন বলে জানান। অদিশার কথায়, ‘কেউ যদি কোনও জিনিসকে ভালবাসে এবং মন থেকে করতে চায় কখনই সেটা পড়াশোনার পথে অন্তরায় হয়ে দাঁড়ায় না, মন অস্থির হলে গোয়েন্দা গল্প পড়তাম।’ অদিশা আরও বলেন, ‘এমনও হত কোনও কোনও দিন পড়তামই, কখনও আবার সারাদিন বই নিয়ে বসে থাকতাম। নির্দিষ্ট কোনও রুটিন ছিল।’

অদিশা সংবাদমাধ্যমকে এদিন আরও বলেন, ‘আমি নিজের পায়ে দাঁড়াতে চাই। সৎ পথে রোজগার করতে চাই। পথশিশুদের জন্যও কিছু করতে চাই। বাবা-মা আমাকে প্রেরণা দিয়েছিলেন। তবে কেউ পড়াশোনা নিয়ে কখনও জোর খাটায়নি আমার উপর। অনলাইন ক্লাসের সময় স্কুলের শিক্ষকরাও আমাদের খুব সাহায্য করেছেন। উচ্চমাধ্যমিকে আমার ন’জন শিক্ষক ছিলেন। আমি ভালো ফল করব, এই আত্মবিশ্বাস ছিল। তবে ভাবতে পারিনি এত ভালো ফল হবে।’

বন্ধ করুন