বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > আচমকা করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পশ্চিমবঙ্গে, সোমবার থেকে আরোপ হতে পারে কড়া বিধিনিষেধ
আগামী সোমবার থেকেই কি রাজ্যে কড়া বিধিনিষেধ জারি হতে চলেছে? একটি মহলের দাবি, সেই সম্ভাবনাই ক্রমশ জোরালো হচ্ছে।
আগামী সোমবার থেকেই কি রাজ্যে কড়া বিধিনিষেধ জারি হতে চলেছে? একটি মহলের দাবি, সেই সম্ভাবনাই ক্রমশ জোরালো হচ্ছে।

আচমকা করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পশ্চিমবঙ্গে, সোমবার থেকে আরোপ হতে পারে কড়া বিধিনিষেধ

  • ‘দুয়ারে সরকার’ কর্মসূচিও বাতিল করে দিয়েছে নবান্ন। যা আগামিকাল থেকে শুরু হওয়ার কথা ছিল।

আগামী সোমবার থেকেই কি রাজ্যে কড়া বিধিনিষেধ জারি হতে চলেছে? একটি মহলের দাবি, সেই সম্ভাবনাই ক্রমশ জোরালো হচ্ছে। সূত্রের খবর, বিষয়টি নিয়ে রাজ্য সরকারের শীর্ষ মহলে আলোচনা চলছে। আজই সন্ধ্যায় সে বিষয়ে চূড়ান্ত ঘোষণা করা হতে পারে।

নয়া বছরে প্রথম সপ্তাহে ‘স্টুডেন্টস উইক’ পালনের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল রাজ্য সরকার। আগামী সোমবার (৩ জানুয়ারি) নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে পড়ুয়াদের অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও সেখানে উপস্থিত থাকতেন। নবান্ন সূত্রে খবর, সেই অনুষ্ঠান বাতিল করে দেওয়া হয়েছে। ওই অনুষ্ঠানে প্রায় ২,০০০ পড়ুয়ার উপস্থিত থাকার কথা ছিল। বর্তমানে রাজ্যে যে হারে করোনা সংক্রমণ বাড়ছে, তাতে কোনওরকম ঝুঁকি নিতে চায়নি নবান্ন। সেই অনুষ্ঠান কবে হবে, তাও জানানো হয়নি। সেইসঙ্গে ‘দুয়ারে সরকার’ কর্মসূচিও বাতিল করে দিয়েছে নবান্ন। যা আগামিকাল থেকে শুরু হওয়ার কথা ছিল।

কোন কোন ক্ষেত্রে বিধিনিষেধ জারি করা হতে পারে? 

১) একটি মহলের দাবি, লোকাল ট্রেন পরিষেবা পুরোপুরি বন্ধ করা হবে না। তবে লোকাল ট্রেনের সংখ্যা কমানো হবে।

২) আন্তর্জাতিক বিমান চলাচলের ক্ষেত্রেও বিধিনিষেধ জারি করা হতে পারে।

৩) সিনেমা হল, পানশালা, রেস্তোরাঁর মতো জায়গায় যত শতাংশ মানুষকে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছিল, তা কমানোর সম্ভাবনা আছে।

৪) সরকারি এবং বেসরকারি অফিসের কর্মী উপস্থিতির ক্ষেত্রে কিছুটা রাশ টানা হতে পারে। দিনকয়েক আগেই ওয়ার্ক ফ্রম হোমের পক্ষে সওয়াল করেছিলেন মমতা।

উল্লেখ্য, ওমিক্রন আতঙ্কের মধ্যে গত কয়েকদিনে রাজ্যে লাফিয়ে বেড়েছে সংক্রমণ। গত ২৫ ডিসেম্বর স্বাস্থ্য দফতরের বুলেটিন অনুযায়ী, রাজ্যে ৫৫২ জন করোনা আক্রান্তের হদিশ মিলেছে। ৩১ ডিসেম্বরের বুলেটিনে সেই সংখ্যাটা বেড়ে ৩,৫০০-এর কাছে পৌঁছে গিয়েছে। কলকাতায় তো অবস্থা রীতিমতো খারাপ। শুক্রবারের বুলেটিন অনুযায়ী, শুধু কলকাতায় ১,৯৫৪ জন আক্রান্তের হদিশ মিলেছে।

বন্ধ করুন