জোড়া ছাড়ের ঘোষণা রাজ্যের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)
জোড়া ছাড়ের ঘোষণা রাজ্যের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য হিন্দুস্তান টাইমস)

রোড ট্যাক্স ও আইন লঙ্ঘনের জরিমানায় জোড়া ছাড়ের ঘোষণা রাজ্যের

  • মোটর ভেহিক্যালস আইনের বিভিন্ন ধারা লঙ্ঘনের ক্ষেত্রেও জরিমানা মকুবের সিদ্ধান্ত নিয়েছে পরিবহন দফতর।

নির্দিষ্ট সময় অনুযায়ী রোড ট্যাক্স মেটানো হয়নি? তার জেরে বাড়ছে জরিমানা? যদি তাই হয়, তাহলে আপনার জন্য সুখবর নিয়ে এল রাজ্য।

পরিবহন দফতর জানিয়েছে, আগামী ৩১ মার্চের মধ্যে রোড ট্যাক্স বাবদ বকেয়া টাকা মিটিয়ে দিলে জরিমানা বাবদ এক পয়সাও গুনতে হবে না। অর্থাৎ নির্দিষ্ট সময়মতো রোড ট্যাক্স না দেওয়ায় যে জরিমানা হয়েছিল, তা ১০০ শতাংশ মকুব করে দেওয়ার ঘোষণা করেছে শুভেন্দু অধিকারীর দফতর।

পরিবহন দফতরের এক কর্তা জানান, রোড ট্যাক্স বাবদ প্রায় ৫০০ কোটি টাকা বকেয়া রয়েছে। জরিমানা মকুব করে দেওয়ায় বেসরকারি ও বাণিজ্যিক উভয় গাড়ি মালিকরাই রোড ট্যাক্স মিটিয়ে দিতে উদ্যোগী হবে বলে আশা তাঁর।

পাশাপাশি, মোটর ভেহিক্যালস আইনের বিভিন্ন ধারা লঙ্ঘনের ক্ষেত্রেও জরিমানা মকুবের সিদ্ধান্ত নিয়েছে পরিবহন দফতর। একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানানো হয়েছে, মোটর ভেহিক্যালস আইনের ধারা লঙ্ঘনের জন্য যে জরিমানা ধার্য করা হয়েছিল, ৩১ মার্চের মধ্যে তা জমা দিলে ৫০ শতাংশ জরিমানা মকুব করা হবে।

নবান্ন সূত্রের খবর, গাড়ির মালিকরাই অনেক ক্ষেত্রেই জরিমানা বাবদ টাকা দিতে যেমন গড়িমসি করেন, তেমন জরিমানার জন্য রোড ট্যাক্স দেন না। কিন্তু রাজ্যের কোষাগারের অবস্থা ভাঁড়ে মা ভবানী। এই পরিস্থিতিতে রোড ট্যাক্স ও জরিমানা বাবদ অর্থ সরকারের কোষাগারে ঢুকলে টানাটানি কিছুটা হলেও কমবে। তাই জোড়া অফারের ঘোষণা করা হয়েছে।

বন্ধ করুন