বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ধার শোধ নিয়ে বচসার জেরে জগদ্দলে যুবক খুন, শুরু রাজনৈতিক চাপানউতোর
নিহত সিকান্দর দাস।
নিহত সিকান্দর দাস।

ধার শোধ নিয়ে বচসার জেরে জগদ্দলে যুবক খুন, শুরু রাজনৈতিক চাপানউতোর

  • এই ঘটনায় তৃণমূলকে কাগড়ায় তুলে সাংসদ অর্জুন সিং দাবি করেন, ‘ঘটনায় অভিযুক্ত মন্নু সাউ ওরফে মনুয়া তৃণমূলের গুন্ডা। ছবিতে দেখা গিয়েছে একটি অনুষ্ঠান মঞ্চে জগদ্দলের বিধায়ক সোমনাথ শ্যামের সঙ্গে বসে রয়েছে অভিযুক্ত মন্নু সাউ।

ধার শোধ নিয়ে বিবাদের জেরে ভাটপাড়ার বড় শ্রীরামপুরে যুবক খুনের ঘটনায় শুরু হল রাজনৈতিক চাপানউতোর। স্থানীয় বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংয়ের দাবি, ঘটনায় মূল অভিযুক্ত মুন্না সাউ তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতী। স্থানীয় তৃণমূল সোমনাথ শ্যামের সঙ্গে তাঁর ছবিও প্রকাশ করেছেন তিনি।

শনিবার রাতে ভাটপাড়ার বড় শ্রীরামপুরে আততায়ীদের গুলিতে খুন হন যুবক সিকান্দর দাস (২৮)। মুন্না সাউ নামে এক দুষ্কৃতীর নেতৃত্বে চলে হামলা। বাড়ির সামনেই খুব কাছ থেকে মাথায় গুলি করে খুন করা হয় সিকান্দরকে।

পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, লকডাউনের সময় সংসার চালাতে মুন্নার কাছ থেকে ২০ হাজার টাকা ধার নিয়েছিলেন সিকান্দর। কিন্তু সেই টাকা শোধ করতে পারছিলেন না তিনি। শনিবার সন্ধ্যায় এই নিয়ে ২ জনের একদফা কথা কাটাকাটি হয়। রাত ১০.৩০ মিনিট নাগাদ সিকান্দরের বাড়িতে হানা দেয় মুন্না। সেখানে টাকা ফেরত দেওয়ার জন্য কিছু সময় চান সিকান্দর। এসব নিয়ে কথা কাটাকাটি চলতে চলতেই সিকান্দরের মাথা লক্ষ্য করে গুলি চালায় মুন্না। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তাঁর।

এই ঘটনায় তৃণমূলকে কাগড়ায় তুলে সাংসদ অর্জুন সিং দাবি করেন, ‘ঘটনায় অভিযুক্ত মন্নু সাউ ওরফে মনুয়া তৃণমূলের গুন্ডা। ছবিতে দেখা গিয়েছে একটি অনুষ্ঠান মঞ্চে জগদ্দলের বিধায়ক সোমনাথ শ্যামের সঙ্গে বসে রয়েছে অভিযুক্ত মন্নু সাউ। মৃতের পরিবার এফ আই আর দায়ের করলে, ঘটনার সিবিআই তদন্তের দাবি জানানো হবে’।

অপরদিকে জগদ্দলের বিধায়ক সোমনাথ শ্যামের দাবি, ‘অনেকদিন আগে একটি খেলার অনুষ্ঠান মঞ্চের ছবি। ওটাকে নিয়ে সাংসদ রাজনীতি করছেন। আমি কি জানতাম ওই ছেলেটা কোনওদিন কাউকে খুন করবে’? তাঁর দাবি, দুঃখজনক ঘটনা। দোষীরা কঠিন শাস্তি পাবে।

 

বন্ধ করুন