বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > খাস কলকাতায় বহুতল থেকে ঝাঁপ দিল ছাত্র, অনলাইনে ওয়েব সিরিজ দেখার জের
মৃত্যু হল নামী স্কুলের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র। (প্রতীকী ছবি)

খাস কলকাতায় বহুতল থেকে ঝাঁপ দিল ছাত্র, অনলাইনে ওয়েব সিরিজ দেখার জের

  • আর পরিবারে নেমে এলো শোকের ছায়া। অনলাইন ক্লাসের ফাঁকে এসবই দেখত ছেলেটি।

জাপানি ওয়েব সিরিজ দেখছিল ছাত্রটি। আশা করেছিল তাকেও কেউ বাঁচিয়ে নেবে। তাই ছাদ থেকে ঝাঁপ দেয় ছাত্রটি। কিন্তু কোনও দেবদূত কোলে তুলে নেয়নি পূর্ব কলকাতার বিরাজকে। খাস কলকাতায় এভাবেই মৃত্যু হল নামী স্কুলের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র বিরাজ পাচিসিয়া (১২)। আর পরিবারে নেমে এলো শোকের ছায়া। অনলাইন ক্লাসের ফাঁকে এসবই দেখত ছেলেটি।

পুলিশ সূত্রে খবর, ফুলবাগান এলাকার ক্যানাল সার্কুলার রোডে এই ঘটনা ঘটেছে। এখানের আবাসনের সুইমিং পুলের পাশে পড়েছিল রক্তাক্ত দেহ। অনলাইনে ক্লাস করত ছেলেটি। ওয়েব সিরিজ ‘প্ল্যাটিনাম এন্ড’ দেখত সে। তাতেই মজে কল্পনার জগৎ তৈরি হয়েছিল ছেলেটির। তার মনে হয়েছিল, মিরাইকে যখন দেবদূত বাঁচিয়েছে, তখন তাকেও বাঁচাবে। তারই ১১ তলার ছাদ থেকে মারণঝাঁপ দেয় ছেলেটি।

স্থানীয় সূত্রে খবর, শনিবার ঘটেছে এই ঘটনাটি। আবাসনের ৬ তলার ফ্ল্যাটে থাকে বিরাজের পরিবার। সরস্বতী পুজোর দিন সবাই ব্যস্ত ছিলেন। সবার চোখ এড়িয়ে ১২ বছরের ওই ছেলেটি লিফটে করে পৌঁছে যায় ছাদে। তারপরই আওয়াজ শুনে ছুটে যান আবাসনের নিরাপত্তারক্ষী ও বাসিন্দারা। বিরাজকে বাড়ির পিছনে সুইলিং পুলের পাশে পড়ে থাকতে দেখা যায়। রক্তাক্ত অবস্থায় তাকে একটি নার্সিংহোমে নিয়ে যাওয়া হলেও চিকিৎকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন।

ওই ওয়েব সিরিজ দেখে কল্পনার জগৎ তৈরি করে বিরাজ ঐশ্বরিক ক্ষমতার অধিকারী হওয়ার স্বপ্ন দেখেছিল ছেলেটি। তাই তার মোবাইল পুলিশ ঘেঁটে দেখতে শুরু করেছে। তার বন্ধুদের সঙ্গেও কথা বলা হতে পারে। এই ধরনের কাজ যাতে আর কোনও ছাত্র না করে, তার জন্যই এই উদ্যোগ। কল্পনার আর বাস্তব এক নয় তা নিয়ে সচেতন করতে হবে স্কুলগুলিকে।

বন্ধ করুন