বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ফুলের টবে রাখা ছিল বোমা!‌ আতঙ্কে গৃহকর্তা, কসবায় হাজির বম্ব স্কোয়াড

ফুলের টবে রাখা ছিল বোমা!‌ আতঙ্কে গৃহকর্তা, কসবায় হাজির বম্ব স্কোয়াড

বাড়ির টবে বোমা। প্রতীকী ছবি, সৌজন্যে ফেসবুক।

হাঁক পাড়েন বাড়ির সদস্য এবং প্রতিবেশীদের। তাঁরাও আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। টবের মধ্যেই রাখা ছিল তাজা বোমা।

বাড়ির টবে বোমা মিলতে পারে তা কল্পনাও করেননি পরিবারের সদস্যরা। কিন্তু ফুল গাছে জল দিতে গিয়ে ভুল দেখছেন কিনা তার জন্য বাড়ির সদস্যদের ডেকে এনেছিলেন। আর তাতেই সবার চক্ষু চড়কগাছ। বাড়ির দরজার সামনে ফুল গাছে জল দিচ্ছিলেন কসবার পূর্ব রাজাবাজারের পরিবারের একজন সদস্য। কিন্তু টবের গাছের পাতার ফাঁকে কি পড়ে রয়েছে দেখতে গিতেই চমকে ওঠেন গৃহস্থ। হাঁক পাড়েন বাড়ির সদস্য এবং প্রতিবেশীদের। তাঁরাও আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। টবের মধ্যেই রাখা ছিল তাজা বোমা।

স্থানীয় সূত্রে খবর, কসবার এই গৃহস্থ পরিবার ভয়ে সংবাদমাধ্যমের সামনে আসতে চাননি। নিজেদের নাম গোপন থাকুক চেয়েছেন। প্রচণ্ড ভয় পাচ্ছেন পরিবারের সদস্যরা। বাড়ির সামনেই রাখা ফুলের টবে জল দিতে গিয়ে বোমাটি পড়ে থাকতে দেখেন গৃহস্থ। ওই ব্যক্তি কোনও ঝামেলায় থাকেন না। ছোটখাটো কাজ করেই সংসার চলে। তারই বাড়ির সামনে থেকে তাজা বোমা উদ্ধারে আতঙ্কিত পরিবার।

এদিকে যে কোনও মুহূর্তে এই বোমা ফেটে যেতে পারত বলে মনে করছেন তাঁরা। এখন রাজ্যের সমস্ত স্কুল খুলে গিয়েছে। এই বাড়ির ঢিল ছোঁড়া দূরত্বে দুটি প্রাইমারি স্কুল রয়েছে। তাই আতঙ্ক আরও ছড়িয়েছে। এই এলাকা ঘনবসতিপূর্ণ। ফলে বোমা বিস্ফোরণ হলে মারাত্মক আকার ধারণ করত। স্থানীয়দের মাধ্যমে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় কসবা থানার পুলিশ। পৌঁছয় বম্ব স্কোয়াডও।

পুলিশ সূত্রে খবর, কে বা কারা বোমাটি রেখেছিল তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। ইতিমধ্যেই বোমাটিকে নিষ্ক্রিয় করা হয়। এলাকায় এই ধরনের ঘটনা আগে ঘটেনি। সিসিটিভি ফুটেজ পরীক্ষা করা হচ্ছে। কি উদ্দেশ্যে এখানে বোমা রাখা হয়েছিল তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে। বাড়ির সদস্যদের বয়ান নেওয়া হয়েছে। এই বোমাটি বেশ তাজা।

বন্ধ করুন