বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > মারা গেলেন কলকাতা পুলিশের কনস্টেবল, রাজ্যের পুলিশে প্রথম করোনায় মৃত্যু
রাজ্যের এই প্রথম করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল কোনও পুলিশকর্মীর (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
রাজ্যের এই প্রথম করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল কোনও পুলিশকর্মীর (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

মারা গেলেন কলকাতা পুলিশের কনস্টেবল, রাজ্যের পুলিশে প্রথম করোনায় মৃত্যু

  • ওই কনস্টেবল শেক্সপিয়ার সরণি থানায় ডেপুটেশনে কর্মরত ছিলেন।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের পুলিশের অনেক কর্মী। কিন্তু এই প্রথম করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল রাজ্যের কোনও পুলিশকর্মীর। শেক্সপিয়ার সরণি থানায় ডেপুটেশনে কর্মরত ছিলেন কলকাতা পুলিশের ওই কনস্টেবল।

লালবাজার সূত্রে খবর, বছর ৪৭-র কনস্টেবলের বাড়ি শিলিগুড়ির ফাঁসিদেওয়ায়। তিনি কলকাতা পুলিশের সাউথ ডিভিশনের রিজার্ভ অফিসে কর্মরত ছিলেন। পরে ডেপুটেশনে তাঁকে শেক্সপিয়ার সরণি থানায় পাঠানো হয়েছিল। 

এরইমধ্যে তিনি স্ত্রীর অসুস্থতার খবর পেয়ে গত ২৮ মে তিনি বাসে করে ফাঁসিদেওয়ার বাড়িতে গিয়েছিলেন। ১ জুন তিনি কাজে যোগ দিয়েছিলেন। সেদিনই তাঁর করোনা পরীক্ষা করা হয়েছিল। প্রাথমিকভাবে অবশ্য তাঁর কোনও উপসর্গ ছিল না। পরদিন কিছু উপসর্গ দেখা দিয়েছিল। ৩ জুন রিপোর্ট আসতে দেখা গিয়েছিল, তিনি করোনা আক্রান্ত। সেইমতো তাঁকে কলকাতা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছিল। কিন্তু সেখানে তাঁর শারীরিক অবস্থার ক্রমশ অবনতি হতে শুরু করে। শনিবার সেখানেই মৃত্যু হয় তাঁর।

উল্লেখ্য, কলকাতা পুলিশের প্রায় ২০০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন বলে লালবাজার সূত্রে খবর। ১০০ জনের মতো পুলিশকর্মী সেরে উঠে কাজেও যোগ দিয়েছেন। তার জেরে কিছুটা স্বস্তি ফিরেছিল লালবাজারের অন্দরে। কিন্তু কনস্টেবলের মৃত্যুর ঘটনায় নতুন করে উদ্বেগ বাড়ল বলে সংশ্লিষ্ট মহলের মত। সংশ্লিষ্ট আধিকারিকদের বক্তব্য, বিশেষত করোনা সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে যেভাবে কলকাতা পুলিশের ট্রেনিং স্কুল, চতুর্থ ব্যাটেলিয়নের কর্মীরা নজিরবিহীনভাবে বিক্ষোভ দেখিয়েছিলেন, সেই পরিস্থিতিতে কিছুটা হলেও আবার অস্বস্তির বাতাবরণ তৈরি হল।

বন্ধ করুন