বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > নবান্ন অভিযানে জলকামানের জলে মেশানো হয়েছিল করোনা, চাঞ্চল্যকর দাবি BJPর
বিজেপির নবান্ন অভিযানে জলকামান থেকে ছোড়া হচ্ছে রঙীন জল। 
বিজেপির নবান্ন অভিযানে জলকামান থেকে ছোড়া হচ্ছে রঙীন জল। 

নবান্ন অভিযানে জলকামানের জলে মেশানো হয়েছিল করোনা, চাঞ্চল্যকর দাবি BJPর

  • গত ৮ অক্টোবর রঙীন জল নিয়ে বিতর্ক শুরু হতেই সাফাই দিয়েছিলেন মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। জানিয়েছিলেন, হোলির রং মেশানো হয়েছিল জলে।

নবান্ন অভিযানে জলকামানের রঙীন জলে করোনা মিশিয়ে দিয়েছিল প্রশাসন। যার ফলে অভিযানের পর করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন একাধিক বিজেপি নেতা। জাতীয় মানবাধিকার কমিশনে এমনই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ দায়ের করল বিজেপি। দলের দাবি, ওই অভিযানের পর দলের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। বিশেষ করে যেখানে রঙীন জল ব্যবহার করা হয়েছে সেখানে সংক্রমণের হার বেশি। 

এদিন জাতীয় মানবাধিকার কমিশনে নালিশ জানাতে যায় বিজেপির একটি প্রতিনিধিদল। তাতে ছিলেন সাংসদ স্বপন দাশগুপ্ত। বিষ্ণুপুরের সাংসদ তথা দলের রাজ্য যুব মোর্চার সভাপতি সৌমিত্র খাঁ প্রমুখ। অভিযোগ পত্রে বিজেপি দাবি করেছে, নবান্ন অভিযানে জলকামানের জলে যে বেগুনি রং ব্যবহার করেছে প্রশাসন, তাতে মেশানো ছিল করোনাভাইরাস। ফলে সংক্রমিত হয়েছেন অনেকে। আবার করোনাভাইরাসে আক্রান্ত না হলেও অন্য উপসর্গ নিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েছে বহু মানুষ। 

গত ৮ অক্টোবর রঙীন জল নিয়ে বিতর্ক শুরু হতেই সাফাই দিয়েছিলেন মুখ্যসচিব আলাপন বন্দ্যোপাধ্যায়। জানিয়েছিলেন, হোলির রং মেশানো হয়েছিল জলে। আন্দোলনকারীদের পরে চিহ্নিত করতেই এই সিদ্ধান্ত বলে জানানো হয়েছিল প্রশাসনের তরফে। এমনকী দেশে ও বিদেশে রঙীন জল ব্যবহারের উদাহরণ রয়েছে বলে উল্লেখ করেছিলেন তিনি। 

তবে তার পরও নিজেদের দাবিতে অনড় বিজেপি। এব্যাপারে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহের কাছেও রিপোর্ট পাঠিয়েছে তারা। 

 

বন্ধ করুন