বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে দলে নেওয়ার বিরোধিতায় বাবুলের পাশে দিলীপ, সায়ন্তন,অগ্নিমিত্রা
ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে দলে নেওয়ার বিরোধিতায় বাবুলের পাশে দিলীপ, সায়ন্তন,অগ্নিমিত্রা

  • বাবুলের পাশে দাঁড়িয়ে জিতেন্দ্রকে নিয়ে নিজের মত জানিয়েছেন দিলীপ ঘোষও। তিনি বলেন, ‘বাবুলদাকে দিনের পর দিন কাজ করতে বাধা দিয়েছেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি। বাবুলদার বুকে ইট পর্যন্ত ছুড়েছেন। ফলে তাঁর প্রতিক্রিয়া স্বাভাবিক। এখন দল চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে।’

তৃণমূল থেকে জিতেন্দ্র তিওয়ারির পদত্যাগের পরেই তাঁকে বিজেপিতে নেওয়ার বিরোধিতায় মুখ খুলেছিলেন বাবুল সুপ্রিয়। শুক্রবার তাঁর সুরে সুর মেলালেন একাধিক বিজেপি নেতা। তার মধ্যে রয়েছেন বিজেপি রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষও। এরই মধ্যে এদিন কলকাতায় পৌঁছেছেন জিতেন্দ্র। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে সাক্ষেতের কথা রয়েছে তাঁর। 

বৃহস্পতিবার ফেসবুকে এক ভিডিয়ো পোস্ট করে বাবুল সুপ্রিয় জানান, ‘জিতেন্দ্র তিওয়ারি বিজেপিতে যোগ দিলে মন থেকে মেনে নিতে পারব না। যদিও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের হাতে।’

এর পর বোমা ফাটান বিজেপি মহিলা মোর্চার সভানেত্রী অগ্নিমিত্রা পালও। তিনি বলেন, ‘উনি বাবুলদার ওপর দিনের পর দিন অত্যাচার করেছেন। কাজ করতে দেননি। আজ ভোটের চার মাস আগে ওনার উন্নয়নের কথা মনে পড়েছে? আসানসোলবাসী ওনাকে চায় না। কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে। আমাদের দলে যে কেউ আসতে পারে। কিন্তু কে কতটা দায়িত্ব পাবে সেটা তো নেতৃত্বের হাতে।’

বাবুলের পাশে দাঁড়িয়ে জিতেন্দ্রকে নিয়ে নিজের মত জানিয়েছেন দিলীপ ঘোষও। তিনি বলেন, ‘বাবুলদাকে দিনের পর দিন কাজ করতে বাধা দিয়েছেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি। বাবুলদার বুকে ইট পর্যন্ত ছুড়েছেন। ফলে তাঁর প্রতিক্রিয়া স্বাভাবিক। এখন দল চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবে।’

জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে দলে নেওয়ার বিরোধিতায় সরব হয়েছেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসুও। তিনি বলেন, ‘আসানসোলে আমরা নিজের ক্ষমতাতেই ২ বার জিতেছি। লোকসভা নির্বাচনে ওর জেলার সমস্ত বিধানসভায় আমরা এগিয়ে। ওর বিরুদ্ধেই মানুষ আমাদের ভোট দিয়েছেন। ওকে দলে নেওয়া ঠিক হবে না। কেন্দ্রীয় নেতৃত্বকে যা জানানোর জানিয়ে দেব।’

সরাসরি কোনও মন্তব্য না করলেও এব্যাপারে মুখ খুলেছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক মুকুল রায়ও। তিনি বলেন, সবাইকে শুভেন্দু অধিকারী ভাবা ঠিক নয়।

ওদিকে শুক্রবার আসানসোল থেকে কলকাতায় আসেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি। সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেন, মন খারাপ তাই মেয়ের সঙ্গে দেখা করতে এসেছি। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করার কথা তাঁর।  

 

বন্ধ করুন