বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > লোকসভা নির্বাচনের পর্যালোচনা বৈঠকে অনুপস্থিত শুভেন্দু, কেন এলেন না বিরোধী দলনেতা?‌

লোকসভা নির্বাচনের পর্যালোচনা বৈঠকে অনুপস্থিত শুভেন্দু, কেন এলেন না বিরোধী দলনেতা?‌

নিশীথ প্রামাণিকের সঙ্গে শুভেন্দু অধিকারী কোচবিহারে।

লোকসভা নির্বাচনের ফলপ্রকাশের পর শুভেন্দুকে কড়া বার্তা দিয়েছে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। আবার দিলীপ ঘোষের রাজ্য সভাপতি পদে প্রত্যাবর্তনের গুঞ্জনও শোনা যাচ্ছে। দিলীপ–সুকান্তদের এড়িয়ে যেতে চাইছেন নন্দীগ্রামের বিধায়ক বলেও মনে করছেন কেউ কেউ। দলে থেকেই সমান্তরাল সংগঠন চালানোর অভিযোগ উঠেছে শুভেন্দুর বিরুদ্ধে।

সদ্যসমাপ্ত লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলে দেখা গিয়েছে, বিজেপির আসন সংখ্যা কমে ১২টি হয়েছে। ২০১৯ সালে এই সংখ্যাটাই ছিল ১৮। কেন কমল পদ্মের ফলন?‌ আজ, শনিবার এই নিয়েই প্রথম বৈঠকে বসেছেন রাজ্য বিজেপির নেতারা। লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল পর্যালোচনা থেকে শুরু করে উপনির্বাচনের প্রার্থী বাছাই সবই হবে এখানে। সুতরাং এই বৈঠকে যে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সেটা বলার অপেক্ষা রাখে না। অথচ এমন গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকে গরহাজির রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। তিনি কোচবিহারে ঘরছাড়া বিজেপি কর্মীদের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছেন। যদিও তাঁর এই সফর দলের পক্ষ থেকে পূর্বনির্ধারিত ছিল না বলে সূত্রের খবর।

২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল নিয়ে সবচেয়ে বেশি যিনি মুখ খুলেছেন তিনি হলেন দিলীপ ঘোষ। তাতে অস্বস্তিতে পড়েছে বঙ্গ–বিজেপি নেতৃত্ব। আবার তা নিয়ে শুভেন্দুও নাম না করে কড়া ভাষায় আক্রমণ শানিয়ে ছিলেন দিলীপকে। ইতিহাস জানে না বলে নিশানা করেন শুভেন্দু। পাল্টা দিলীপ নিজের এবং দলের পরাজয়ের পিছনে কাঠিবাজি, ষড়যন্ত্রের তত্ত্ব তুলে ধরেন। হারা আসন জেতার পরিকল্পনা করে সব দল। কিন্তু এখানে জেতা আসন হারানোর পরিকল্পনা হয়েছিল বলে তুলোধনা করেন দিলীপও। সেখানে এমন বৈঠকে দিলীপের মুখোমুখি যাতে না হতে হয় তাই অনুপস্থিত শুভেন্দু বলে মনে করছেন অনেকে।

আরও পড়ুন:‌ ‘‌আপনি দিল্লির বাংলো ছাড়বেন না’‌, কংগ্রেস হাইকমান্ডের নির্দেশ এল অধীরের দুয়ারে, কেন?‌

সূত্রের খবর, লোকসভা নির্বাচনের ফলপ্রকাশের পর শুভেন্দুকে কড়া বার্তা দিয়েছে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। আবার দিলীপ ঘোষের রাজ্য সভাপতি পদে প্রত্যাবর্তনের গুঞ্জনও শোনা যাচ্ছে। তাই কি অভিমানী শুভেন্দু? উঠছে প্রশ্ন। দিলীপ–সুকান্তদের এড়িয়ে যেতে চাইছেন নন্দীগ্রামের বিধায়ক বলেও মনে করছেন কেউ কেউ। দলে থেকেই সমান্তরাল সংগঠন চালানোর অভিযোগ উঠেছে শুভেন্দুর বিরুদ্ধে। তাই কদিন আগে শুভেন্দু বলেন, ‘‌ভাল হলে নিজেদের ক্রেডিট দেন। খারাপ হলে আমার ঘাড়ে দোষ চাপান। আমি কখনওই দলের অভ‌্যন্তরের বিষয় বাইরে বলি না। আমার কাজ প্রচার করা। সাংগঠনিক ব‌্যাপারে আমি হস্তক্ষেপ করি না। ভবিষ‌্যতেও করার ইচ্ছে নেই।’‌ আর আজ, শনিবার দলীয় বৈঠকে শুভেন্দুর অনুপস্থিতি নতুন করে সংঘাতের আবহ তৈরি করল বলে মনে করা হচ্ছে।

এই বৈঠকে উপস্থিত না থাকার খবর চাউর হতেই বহু বিজেপি নেতা নিজেদের মধ্যে আলোচনা শুরু করেছেন। কারণ এই নির্বাচনের ফলপ্রকাশের পর দলের ভিতরে–বাইরে সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছিল নন্দীগ্রামের বিধায়ককে। যদিও তাঁর বৈঠকে যোগ না দেওয়া নিয়ে তৈরি বিতর্কে গুরুত্ব দিচ্ছেন না শুভেন্দু। এদিন সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, ‘‌আমি কোচবিহার যাচ্ছি। সেখানে প্রায় ২৭০ জন ঘরছাড়া কর্মী পার্টি অফিসে আশ্রয় নিয়েছেন। তাঁদের সঙ্গে গিয়ে কথা বলবো। এতগুলি রাজ্যে ভোট হয়েছে, সেখান থেকে তো এমন কোনও হিংসার খবর আসে না। এখানেই কেন হচ্ছে? এই বিষয়ে আজ জেলাশাসকের সঙ্গেও দেখা করব।’‌

বাংলার মুখ খবর

Latest News

এক কেজি আলুর দাম ৫০ টাকা!‌ ধর্মঘট উঠবে কবে?‌ পথে আবার নামছে টাস্ক ফোর্স বিরাট-অনুষ্কার লন্ডনে থাকার জল্পনা, দম্পতির নতুন ছবি, অকায় বা ভামিকা আছে সঙ্গে? সকাল থেকে আকাশের মুখ ভার, তা বলে আপনার আনন্দ যেন না কমে! পড়ুন দিনের সেরা ৫ জোকস ক্যানসারে আক্রান্ত বন্ধুর স্ত্রী, টাকা জোগাড় করতে বাইক চুরি, হতবাক পুলিশ রেকর্ড মুনাফা তেল কোম্পানিগুলির, ৩০০০০ কোটির সাহায্যের পরিকল্পনা বাতিল সরকারের Women's Asia Cup: সবাইকে সুযোগ..... নিজে ব্যাটিং না করার কারণ জানালেন স্মৃতি ত্রুটি সংশোধন করা হবে, INS ব্রহ্মপুত্রে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় জানাল নৌবাহিনী ইউজিসি’‌র ক্ষেত্রে বাজেট বরাদ্দ একধাক্কায় কমল, উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে পড়ল বড় কোপ কিন্তু তোর সঙ্গে......ক্যানসারের সঙ্গে লড়াই করা অংশুমানের জন্য কপিলের বার্তা নতুন বাজেটে কারা হতে পারেন বড়লোক? কাদের বাড়বে আয়? কী বলছে জ্যোতিষশাস্ত্র

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.