বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > কলকাতার জোড়াবাগানে বহুতল থেকে নাবালিকার গলা কাটা দেহ উদ্ধার
প্রতীকি ছবি
প্রতীকি ছবি

কলকাতার জোড়াবাগানে বহুতল থেকে নাবালিকার গলা কাটা দেহ উদ্ধার

  • খবর পেয়ে এলাকায় পৌঁছয় জোড়াবাগান থানার পুলিশ। দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠায় তারা। এর পর ঘটনাস্থলে পৌঁছন তদন্তকারীরা।

কলকাতার জোড়াবাগানে নাবালিকার নগ্ন গলাকাটা দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য। বৃহস্পতিবার সকালে এলাকার একটি বহুতলের তিন তলার সিঁড়ি থেকে দেহটি উদ্ধার করে পুলিশ। শোভাবাজারের বাসিন্দা ওই শিশু মামাবাড়িতে বেড়াতে এসেছিল বলে জানিয়েছেন আত্মীয়রা। দেহ উদ্ধারের পর বুধবার সকালে জোড়াবাগানের পাঁপড় গলি এলাকায় সাময়িক উত্তেজনা ছড়ায়। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে কলকাতা পুলিশের হোমিসাইড শাখা।

নিহতের আত্মীয়রা জানিয়েছেন, দিন কয়েক হল মামাবাড়িতে বেড়াতে এসেছিল নাবালিকা। বুধবার রাত থেকে খোঁজ মিলছিল না তাঁর। বৃহস্পতিবার সকালে এলাকার একটি বহুতলের সিঁড়ি থেকে তার দেহ উদ্ধারের পর এলাকায় উত্তেজনা ছড়ায়। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছে, নাবালিকার পরনে কোনও কাপড় ছিল না। গলার নলি ছিল কাটা। আত্মীয়দের অভিযোগ, যৌন নির্যাতনের পর খুন করা হয়েছে নাবালিকাকে। 

খবর পেয়ে এলাকায় পৌঁছয় জোড়াবাগান থানার পুলিশ। দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠায় তারা। এর পর ঘটনাস্থলে পৌঁছন তদন্তকারীরা। পৌঁছয় পুলিশ কুকুর। তারা ঘটনাস্থল পুলিশ কুকুরকে দিয়ে তিন বার পরীক্ষা করান। পুলিশ কুকুরের সঙ্গে হাঁটেন কলকাতা পুলিশের যুগ্ম কমিশনার (অপরাধদমন) মুরলিধর শর্মা। তিন বারই রবীন্দ্র সরণির দিকে একটি রাস্তায় গিয়ে দাঁড়িয়ে যায় পুলিশ কুকুর। 

ঘটনায় শোক প্রকাশ করে স্থানীয় বিধায়ক তথা রাজ্যের মন্ত্রী শশী পাঁজা বলেন, ‘ঘটনায় আমি মর্মাহত। আমরা চাই দোষীরা শাস্তি পাক। পুলিশ তদন্ত করছে। অপরাধী নিশ্চই শাস্তি পাবে।’

বন্ধ করুন