বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > কমল অক্সিজেনের মাত্রা, হাসপাতালে ভরতি করা হল বুদ্ধদেববাবুকে
বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)
বুদ্ধদেব ভট্টাচার্য। (ফাইল ছবি, সৌজন্য ফেসবুক)

কমল অক্সিজেনের মাত্রা, হাসপাতালে ভরতি করা হল বুদ্ধদেববাবুকে

  • সূত্রের খবর, বুদ্ধদেববাবুর শরীরের অক্সিজেন সম্পৃক্ততা ৯০-এর নীচে নেমে গিয়েছে।

আচমকাই শারীরিক অবস্থার অবনতি হল প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যের। তার জেরে তড়িঘড়ি  দক্ষিণ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে তাঁকে। 

দিনআটেক আগে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হন বুদ্ধদেববাবু। হাসপাতালে যেতে না চাওয়ায় বাড়িতেই চিকিৎসা চলছিল। সোমবার তাঁর শারীরিক অবস্থা ভালোও ছিল। কিন্তু গতরাত থেকে আচমকা শারীরিক অবস্থান অবনতি হতে শুরু করে। সূত্রের খবর, বুদ্ধদেববাবুর শরীরের অক্সিজেনের সম্পৃক্ততার মাত্রা ৯০-এর নীচে নেমে যায়। সকালে পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়। বেড়ে যায় শ্বাসকষ্ট। অক্সিজেনের সম্পৃক্ততার মাত্রা ৮০-৮২-তে নেমে যায়। তারপরই তাঁকে হাসপাতালে ভরতির পরামর্শ দেন চিকিৎসকরা।

সেইমতো দ্রুত দক্ষিণ কলকাতার একটি বেসরকারি হাসপাতালে খবর দেওয়া হয়। তড়িঘড়ি পাম অ্যাভিনিউয়ের বাড়িতে পৌঁছে যায় অ্যাম্বুলেন্স। সকাল ১১ টা ৫০ মিনিট নাগাদ তাঁকে বাড়ি থেকে বের করে আনেন হাসপাতালের কর্মীরা। অ্যাম্বুলেন্সে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর মুখে অক্সিজেনের মাস্কও দেওয়া হয়। দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ থাকার কারণে তাঁর শরীরও কিছুটা ভেঙে গিয়েছে।

এক চিকিৎসক জানান, দীর্ঘদিন ধরেই অসুস্থ বুদ্ধদেববাবু। করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর শরীরের মাঝেমাঝে অক্সিজেনের মাত্রা বাড়ছিল, আবার কখনও কমছিল। হাসপাতালে যেতে বুদ্ধবাবুর অনীহা থাকায় বাড়িতেই চিকিৎসা চলছিল। কিন্তু মঙ্গলবার সকাল থেকে শ্বাসকষ্ট বেড়ে যায়। অক্সিজেনের সম্পৃক্ততার মাত্রা ৮০-৮২-তে নেমে গিয়েছে। তারপর তাঁর সঙ্গে কথা বলা হয়। হাসপাতালে ভরতি হতে রাজি হন বুদ্ধবাবু। সেইমতো হাসপাতালে খবর দেওয়া হয়। শারীরিক অবস্থা সংকটজনক হওয়ায় আপাতত আইসিইউতে রেখে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রীর চিকিৎসা হবে। 

বন্ধ করুন