বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ভাড়া বেশি কেন! হাওড়া-গড়িয়া রুটে কন্ডাক্টরকে মারধর করল যাত্রীরা
ভাড়া নিয়ে বচসার জেরে কন্ডাক্টরের উপর হামলার অভিযোগ যাত্রীদের বিরুদ্ধে উঠেছে। (প্রতীকী ছবি) 
ভাড়া নিয়ে বচসার জেরে কন্ডাক্টরের উপর হামলার অভিযোগ যাত্রীদের বিরুদ্ধে উঠেছে। (প্রতীকী ছবি) 

ভাড়া বেশি কেন! হাওড়া-গড়িয়া রুটে কন্ডাক্টরকে মারধর করল যাত্রীরা

  • পুলিশ সূত্রে জানা যাচ্ছে, শনিবার হাওড়া গড়িয়া রুটের বাসে এই ঘটনা ঘটেছে।

ভাড়া নিয়ে বচসা। আর তার জেরে সরকারি বাসের কন্ডাক্টরকে মারধরের অভিযোগ উঠল। এমনকি টিকিট কাটা মেশিন ভেঙে দেওয়া এবং কন্ডাক্টরের ব্যাগ থেকে টাকা চুরি করে নেওয়ারও অভিযোগ উঠেছে। পুলিশ সূত্রে জানা যাচ্ছে, শনিবার হাওড়া-গড়িয়া রুটের বাসে এই ঘটনা ঘটেছে।

মূলত, এদিন কন্ডাক্টরের সঙ্গে যাত্রীর ঝামেলা শুরু হয় টিকিট কাটাকে কেন্দ্র করে। অভিযুক্ত যাত্রীর অভিযোগ, হাওড়া থেকে তিনি উঠেছিলেন চার বন্ধুর সঙ্গে। বিবাদীবাগে তার নামার কথা। কন্ডাক্টর ভাড়া চাইলে খুচরো না থাকার জন্য তিনি জানিয়ে দেন তার বন্ধুরা তাঁর হয়ে টিকিটের টাকা দিয়ে দেবেন। কিন্তু, কন্ডাক্টর তা মানতে চাননি। তিনি তৎক্ষণাৎ যাত্রীকে ভাড়া দিতে বলেন। অভিযোগ, সেইমতো তিনি কন্ডাক্টরকে ৫০ টাকা দেন। কিন্তু, ভাড়া বাবদ কন্ডাক্টর বেশি টাকা কেটে নেয় বলে অভিযোগ।

এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রথমে কন্ডাক্টরের সঙ্গে যাত্রীর বচসা শুরু হয়। এরপরেই ওই যাত্রী এবং তার বন্ধু-বান্ধব মিলে মারধর করেন বলে পাল্টা অভিযোগ করেন কন্ডাক্টর। তাঁর অভিযোগ, ' ওই যাত্রীরা আমার জামার কলার ধরে বাস থেকে নামিয়ে দেয়। আমাকে মারধর করে। টিকিট কাটার মেশিন ভেঙে দেয়। এমনকি ব্যাগ থেকে টাকাও চুরি করে নিয়েছে।' এই ঘটনার পরেই তিনি পুলিশের কাছে অভিযোগ করেছেন। যদিও এই অভিযোগের কথা অস্বীকার করেছেন যাত্রীরা। কন্ডাক্টর এবং যাত্রীর ঝামেলার জেরে বেশ কিছুক্ষণ বাস বন্ধ থাকে। বাসের অন্যান্য যাত্রীরা এ নিয়ে বিরক্ত হয়ে পড়েন। ঝামেলার খবর পাওয়ার পরেই ঘটনাস্থলে পৌঁছায় পুলিশ। কন্ডাক্টরের অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্ত যাত্রীদের আটক করে পুলিশ থানায় নিয়ে যায়।

বন্ধ করুন