বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ‌রাজভবনের সামনে ভেড়া নিয়ে প্রতিবাদ করায় মামলা দায়ের
রাজভবনের সামনে বিক্ষোভ।
রাজভবনের সামনে বিক্ষোভ।

‌রাজভবনের সামনে ভেড়া নিয়ে প্রতিবাদ করায় মামলা দায়ের

  • রাজ্যপাল একাধিকবার টুইট করেন।টুইটে উষ্মাও প্রকাশ করেন তিনি।প্রশ্ন তোলেন, রাজভবনের সামনে ১৪৪ জারি থাকা সত্বেও কীভাবে বিক্ষোভ দেখাতে পারলেন ওই ব্যক্তি।

রাজভবনের সামনে ভেড়ার পাল নিয়ে প্রতিবাদ করার মাশুল গুনতে হল এক ব্যক্তিকে।ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে মহামারী আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে।ওই ব্যক্তির অপরাধ কী?‌তিনি রাজ্যে ২ মন্ত্রী সহ ৪ নেতার গ্রেফতারির প্রতিবাদ জানাতেই রাজভবনের সামনে গিয়েছিলেন।

সোমবার সকালে নারদ মামলায় বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়া হয় রাজ্যের মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমকে।এরপর একে একে রাজ্যের পঞ্চায়েত মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায়, কামারহাটির বিধায়ক মদন মিত্র ও রাজ্যের প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়কেও গ্রেফতার করা হয়।এরপরের দিনই মঙ্গলবার ওই ঘটনার প্রতিবাদ জানাতে ভেড়ার পাল নিয়ে হাজির হয়ে যান এক ব্যক্তি।ওই ব্যক্তি সিটিজেন এগেনস্ট ডার্টি পলিটিক্স অ্যান্ড কর্পোরেশন নামে এক সংগঠনের সদস্য বলে জানা গিয়েছে।ওই দিন পুলিশ ওই ব্যক্তিকে রাজভবনের সামনে থেকে সরিয়ে দিলেও এরপর রাজ্যপাল একাধিকবার টুইট করেন।টুইটে উষ্মাও প্রকাশ করেন তিনি।প্রশ্ন তোলেন, রাজভবনের সামনে ১৪৪ জারি থাকা সত্বেও কীভাবে বিক্ষোভ দেখাতে পারলেন ওই ব্যক্তি।

রাজ্যপালের এই টুইটের পর নড়েচড়ে বসে কলকাতা পুলিশ।ওই ব্যক্তির বিরুদ্ধে মহামারী আইনে ও করোনা বিপর্যয় মোকাবিলা আইনে  হেয়ার স্ট্রিট থানায় মামলা রুজু করা হয়েছে।এছাড়াও ভারতীয় দণ্ডবিধির ১৮৮ ধারাতেও মামলা দায়ের করা হয়।ইতিমধ্যে রাজ্যপাল পুলিশ কমিশনারের কাছে রিপোর্ট তলব করেছে।উল্লেখ্য, সোমবারের ওই ঘটনার প্রতিবাদে ওই দিনই নিজাম প্যালেসের সামনে বিক্ষোভ দেখাতে থাকে তৃণমূলের অসংখ্য কর্মী ও সমর্থকরা।এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তাল হয়ে ওঠে রাজ্য রাজনীতি।

বন্ধ করুন