বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > New Secretariat building: নব মহাকরণে বসবে আদালত, জোর কদমে চলছে দফতর সরানোর কাজ
নব মহাকরণ।

New Secretariat building: নব মহাকরণে বসবে আদালত, জোর কদমে চলছে দফতর সরানোর কাজ

  • গঙ্গা পারে তৈরি হওয়া নব মহাকরণে আবাসন, ক্রীড়া, সমবায়, পর্যটন, লেবার ট্রাইব্যুনালসহ বিভিন্ন দফতরের কর্মীরা এক তলা থেকে সাত তলা পর্যন্ত সেখানে রয়েছেন। সেই সমস্ত দফতরগুলি অন্যত্র সরানো হলে নব মহাকরণ বিল্ডিংয়ের একতলা থেকে সাততলা পর্যন্ত প্রায় ৫০ হাজার বর্গফুটের মতো জায়গা ফাঁকা হবে।

মহাকরণ বা রাইটার্স বিল্ডিংয়ে জায়গার অভাবে তৈরি করা হয়েছিল নব মহাকরণ বা নিউ সেক্রেটারিয়েট বিল্ডিং। এতদিন বিভিন্ন দফতরের কর্মীরা ছিলেন এই নব মহাকরণে। সেই সমস্ত দফতর অন্যত্র স্থানান্তরের প্রক্রিয়া শুরু হয়ে গিয়েছে। ওই সব দফতর নব মহাকরণ থেকে সরে গেলে সেখানে সিটি সিভিল কোর্ট বা নগর দায়রা আদালতের মতো বিভিন্ন আদালত বসানো হবে বলে সিদ্ধান্ত হয়েছে। কয়েকদিন আগে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় কলকাতা হাইকোর্টের প্রধান বিচারপতি প্রকাশ শ্রীবাস্তবের সঙ্গে বৈঠক করে এ বিষয়ে আলোচনা করেছেন বলে জানা গিয়েছে।

মুখ্যমন্ত্রী নির্দেশ পাওয়ার পরেই রাজ্যের মুখ্যসচিব হরিকৃষ্ণ দ্বিবেদী আগামী ১৫ দিনের মধ্যে নব মহাকরণ থেকে দফতর অন্যত্র স্থানান্তরের নির্দেশ দিয়েছেন। ইতিমধ্যেই সেখানে থাকা বিভিন্ন দফতরের সঙ্গে আলোচনাও সেরে ফেলেছেন মুখ্যসচিব। গঙ্গা পারে তৈরি হওয়া নব মহাকরণে আবাসন, ক্রীড়া, সমবায়, পর্যটন, লেবার ট্রাইব্যুনাল-সহ বিভিন্ন দফতরের কর্মীরা এক তলা থেকে সাত তলা পর্যন্ত সেখানে রয়েছেন। সেই সমস্ত দফতরগুলি অন্যত্র সরানো হলে নব মহাকরণের এক তলা থেকে সাত তলা পর্যন্ত প্রায় ৫০ হাজার বর্গফুটের মতো জায়গা ফাঁকা হবে।

এই ফাঁকা জায়গার মধ্যে মহানগরের সিটি সিভিল কোর্ট-সহ বিভিন্ন আদালত স্থানান্তর করা হবে। কারণ এই সমস্ত আদালতগুলিতে জায়গার অভাবে কাজকর্মে অসুবিধা হয়। সে কথা মাথায় রেখেই আদালতগুলি নব মহাকরণ বিল্ডিংয়ে স্থানান্তরের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আদালতগুলিকে স্থানান্তরের জন্য ইতিমধ্যেই প্রয়োজনীয় প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছে নবান্ন। যদিও দফতরগুলি স্থানান্তরের ঠিকানা এখনও চূড়ান্ত হয়নি।

বন্ধ করুন