বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Mamata-Sourav: রেড রোডের অনুষ্ঠানে দিদির পাশের চেয়ারেই দাদা, কীসের ইঙ্গিত দিলেন সৌরভ?‌
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাশেই সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়

Mamata-Sourav: রেড রোডের অনুষ্ঠানে দিদির পাশের চেয়ারেই দাদা, কীসের ইঙ্গিত দিলেন সৌরভ?‌

  • বাঙালির শ্রেষ্ঠ পুজোকে ঘিরে মহামিছিল থেকে বাদ যায়নি কলকাতা ময়দানও। ইস্টবেঙ্গল, মোহনবাগান ক্লাবের কর্তারাও ইউনেস্কোর প্রতিনিধি দলকে সংবর্ধনা দেন রেড রোডের মঞ্চে। ইস্টবেঙ্গলের পক্ষ থেকে মিছিলে পা মেলান প্রণব দাশগুপ্ত, দেবব্রত সরকার, রাজা গুহের মতো শীর্ষস্থানীয় কর্তারা।

আজ, বৃহস্পতিবার দুর্গাপুজোর ইউনেস্কোর স্বীকৃতি উদযাপন উপলক্ষ্যে রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ যাত্রার আয়োজন করা হয়েছে। তার জন্য মহানগরীতে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রার আয়োজন করা হয়েছিল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে শোভাযাত্রায় অংশ নিয়েছিলেন একাধিক তারকা, মন্ত্রী, বিধায়ক, আমলা এবং সাধারণ মানুষ। রেড রোডে মিছিল শেষ হওয়ার পর বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছিল। সেই অনুষ্ঠানেই উপস্থিত ছিলেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক তথা বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রীর একদম পাশের চেয়ারেই বসতে দেখা যায় মহারাজকে। আর তা নিয়েই রাজনৈতিক মহলে গুঞ্জন শুরু হয়েছে।

ঠিক কী বলেছেন সৌরভ?‌ রেড রোডের মঞ্চে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাশেই সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়কে বসতে দেখা যায়। রেড রোডে ইউনেস্কোর প্রতিনিধিদের সংবর্ধনা দেওয়া হয়। এখানেই সৌরভ বলেন, ‘‌এই স্বীকৃতির জন্য ইউনেস্কোকে ধন্যবাদ জানাই। দুর্গাপূজার উৎসব কত বড় তা বোঝার জন্য দেখতে হবে। এই উৎসব সবার মুখে হাসি ফোটায়। এই উৎসবের পাঁচদিন একেবারেই আলাদা। এই শহরের আতিথেয়তা উপভোগ্য।’‌ কয়েক মাস আগেই নবান্নে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করে এসেছিলেন। অমিত শাহকে আপ্যায়ণের পরেই সৌরভের নবান্ন সফর ঘিরে জল্পনার স্রোত বয়ে গিয়েছিল রাজ্য রাজনীতিতে। এবার সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের দেখা মিলল মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে একই মঞ্চে।

উল্লেখ্য, বাঙালির শ্রেষ্ঠ পুজোকে ঘিরে মহামিছিল থেকে বাদ যায়নি কলকাতা ময়দানও। ইস্টবেঙ্গল, মোহনবাগান ক্লাবের কর্তারাও ইউনেস্কোর প্রতিনিধি দলকে সংবর্ধনা দেন রেড রোডের মঞ্চে। ইস্টবেঙ্গলের পক্ষ থেকে মিছিলে পা মেলান প্রণব দাশগুপ্ত, দেবব্রত সরকার, রাজা গুহের মতো শীর্ষস্থানীয় কর্তারা। রেড রোডের মঞ্চে ইউনেস্কো প্রতিনিধি দলকে সংবর্ধনা জ্ঞাপন করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁদের হাতে তুলে দেওয়া হয় দুর্গা প্রতিমার একাধিক মূর্তি।

ঠিক কী বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী?‌ মুখ্যমন্ত্রী এই বিরাট শোভাযাত্রার পর বলেন, ‘‌ধর্ম যার যার উৎসব সবার, ইউনেস্কোকে স্যালুট জানাই। সারা বাংলায় শোভাযাত্রা হচ্ছে। ইউনেস্কোর সাপোর্ট অনুপ্রেরণা দিয়েছে। ব্রিটিশ কাউন্সিল এবং খড়গপুর আইআইটিকে দিয়ে স্টাডি করিয়েছিলাম। পুজোকে কেন্দ্র ৪০ হাজার কোটির ব্যবসা হয়। পুজোর সঙ্গে সব স্তরের মানুষ যুক্ত থাকেন। সৌরভ আমার ছোট ভাই, ওকে ধন্যবাদ। পুজো দেখার আমন্ত্রণ জানাই ইউনেস্কোকে। প্যান্ডেল হপিং, কার্নিভালে আমন্ত্রণ জানাই। আজ থেকেই পুজো শুরু হয়ে গেল।’‌

বন্ধ করুন