বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ‘‌পুলিশ কমিশনারেরও কোভিড হয়েছে’‌, উদ্বেগ প্রকাশ করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (ফাইল ছবি) (HT_PRINT)
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (ফাইল ছবি) (HT_PRINT)

‘‌পুলিশ কমিশনারেরও কোভিড হয়েছে’‌, উদ্বেগ প্রকাশ করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

  • এদিন তিনি জানান, মুখে মাস্ক পরা এবং হাতে স্যানিটাইজার মাস্ট। মাথা ঢেকে রাখুন।

করোনাভাইরাস রাজ্যজুড়ে রক্তচক্ষু দেখাচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে বাড়িতে কেউ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলে বাকি সদস্যদেরও বাড়ির বাইরে না বেরনোর পরামর্শ দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি উদ্বেগ প্রকাশ করে জানান, কলকাতার পুলিশ কমিশনারের কোভিড হয়েছে। এমনকী তাঁর দুই গাড়ির চালকের করোনাভাইরাস হয়েছে।

ঠিক কী বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী?‌ আজ, বৃহস্পতিবার সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমাকে নিয়েও খবর হয়েছে শুনলাম। লেখা হয়েছে, আমার নাকি কোভিড হয়েছে! আমার কিচ্ছু হয়নি। এখানে তো লুকোচুরির ব্যাপার নেই। ওটা সম্পূর্ণ মিথ্যে খবর। আমি পুরোপুরি সুস্থ। তবে প্রচুর মানুষের হচ্ছে। আমার দু’জন ড্রাইভারের কোভিড হয়েছে। এমনকী পুলিশ কমিশনার বিনীত গোয়েলও এই সংক্রমণে আক্রান্ত হয়েছেন।’

করোনাভাইরাস রাজ্যজুড়ে রক্তচক্ষু দেখাচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে বাড়িতে কেউ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলে বাকি সদস্যদেরও বাড়ির বাইরে না বেরনোর পরামর্শ দিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি উদ্বেগ প্রকাশ করে জানান, কলকাতার পুলিশ কমিশনারের কোভিড হয়েছে। এমনকী তাঁর দুই গাড়ির চালকের করোনাভাইরাস হয়েছে।

ঠিক কী বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী?‌ আজ, বৃহস্পতিবার সাংবাদিক বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আমাকে নিয়েও খবর হয়েছে শুনলাম। লেখা হয়েছে, আমার নাকি কোভিড হয়েছে! আমার কিচ্ছু হয়নি। এখানে তো লুকোচুরির ব্যাপার নেই। ওটা সম্পূর্ণ মিথ্যে খবর। আমি পুরোপুরি সুস্থ। তবে প্রচুর মানুষের হচ্ছে। আমার দু’জন ড্রাইভারের কোভিড হয়েছে। এমনকী পুলিশ কমিশনার বিনীত গোয়েলও এই সংক্রমণে আক্রান্ত হয়েছেন।’|#+|

এদিন তিনি জানান, মুখে মাস্ক পরা এবং হাতে স্যানিটাইজার মাস্ট। মাথা ঢেকে রাখুন। আমার অনুরোধ ভয় পাবেন না লাফিয়ে লাফিয়ে কোভিড বাড়ছে। তিন থেকে পাঁচদিন জ্বর থাকছে। আমি নিজেই জানি না কারা কারা কোভিড আক্রান্ত। আমার দুই গাড়িচালকের কোভিড হয়েছে। ওয়ার্ক ফ্রম হোম প্রক্রিয়ায় কাজ চলুক। সংক্রমণ খুব বেশি ছড়াচ্ছে‌। বাড়ির কারও হলে বাকিরা আইসোলেশনে থাকুন। ৩২ হাজার ২৬৮ বেড তৈরি আছে। হাসপাতালে কিছু মানুষ ভর্তি আছেন।

এদিন তিনি বিধিনিষেধ নিয়ে বলেন, ‘‌বেশ কিছু বিধিনিষেধ ঘোষণা করা হয়েছে। পরবর্তী পরিস্থিতি বিচার করে প্রয়োজনে আরও কিছু ঘোষণা করা হতে পারে। ট্রেন না চালালে বলবে ট্রেন বন্ধ রেখেছে। আর ট্রেন চালালে ভিড় হবে। মানুষের জীবন-জীবিকার কথাও তো ভাবা প্রয়োজন। বলুন আমরা কোন দিকে যাব? এগোলেও দোষ, পিছলেও দোষ।’

বন্ধ করুন