বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > জল্পনাই সার, CPIM-এর রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীতে জায়গা হল না নতুন কোনও যুবার
সিপিএমের নব নির্বাচিত রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী। 
সিপিএমের নব নির্বাচিত রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী। 

জল্পনাই সার, CPIM-এর রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীতে জায়গা হল না নতুন কোনও যুবার

  • বৃহস্পতিবার আলিমুদ্দিন স্ট্রিটে মুজাফ্ফর আহমেদ ভবনে বৈঠকে বসেছিল দলের নতুন রাজ্য কমিটি। পৌরহিত্যে ছিলেন নব নির্বাচিত রাজ্য সম্পাদক সেলিম। সেখানেই নির্বাচিত হয়েছে নতুন রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী। তবে নতুন সম্পাদকমণ্ডলীতেও কোনও বিপ্লব করতে পারেনি রাজ্যের বিগত শাসকদল।

জল্পনা ছিল অনেক। তবে শেষ পর্যন্ত তার কিছুই হল না। নবগঠিত রাজ্য কমিটিতেও যুবাদের জন্য দরজা খুলতে পারল না সিপিআইএম। যার ফলে জলে গেল সব জল্পনা।

বৃহস্পতিবার আলিমুদ্দিন স্ট্রিটে মুজাফ্ফর আহমেদ ভবনে বৈঠকে বসেছিল দলের নতুন রাজ্য কমিটি। পৌরহিত্যে ছিলেন নব নির্বাচিত রাজ্য সম্পাদক সেলিম। সেখানেই নির্বাচিত হয়েছে নতুন রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী। তবে নতুন সম্পাদকমণ্ডলীতেও কোনও বিপ্লব করতে পারেনি রাজ্যের বিগত শাসকদল। একাধিক নতুন মুখ যুক্ত হলেও যুবাদের মধ্যে নতুন কারও জায়গা হয়নি রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীতে।

এদিন সিপিএমের তরফে নতুন রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্যদের নাম ঘোষণা করা হয়েছে, সেলিম ছাড়াও সেখানে রয়েছেন রামচন্দ্র ডোম, শ্রীদীপ ভট্টাচার্য, অমিয় পাত্র, সুজন চক্রবর্তী, আভাস রায় চৌধুরী, সুমিত দে, শমীক লাহিড়ী, দেবলীনা হেমব্রম, কল্লোল মজুমদার, অনাদি শাহু, পলাশ দাস, দেবব্রত ঘোষ, জীবেশ সরকার, জিয়াউল আলম। এর মধ্যে জীবেশ সরকার, দেবব্রত ঘোষ, দেবলীনা হেমব্রম ও জিয়াউল আলম রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলীতে অন্তর্ভুক্ত হয়েছেন।

আগেই সিপিএমের রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী থেকে অব্যহতি নিয়েছিলেন সূর্যকান্ত মিশ্র, বিমান বসু, অশোক ভট্টাচার্য, রবীন দেহ, মৃদুল দে ও মিনতি ঘোষ। সেই শূন্যস্থান পূরণে সিপিএম মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়দের মতো যুবাদের জায়গা দিতে পারে বলে জল্পনা চলছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত অত বড় বিপ্লব করে দেখাতে পারলেন না কমরেডরা।

সূত্রের খবর, সিপিএমের নবগঠিত রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী ঘোষণার আগে বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যের সঙ্গে পরামর্শ করেছে দল। এবার দেখার সেলিমের নেতৃত্বে এই রাজ্য সম্পাদকমণ্ডলী কোমরভাঙা সিপিএমকে ঘুরে দাঁড় করাতে পারে কি না সেটাই দেখার।

 

বন্ধ করুন