মঙ্গলবার সকাল ৮.২৭ মিনিটে তোলা ঘূর্ণিঝড় আমফানের ছবি। আই ওয়াল রিপ্লেসমেন্টেের জন্য দেখা যাচ্ছে না ঝড়ের কেন্দ্রে চোখটি।  
মঙ্গলবার সকাল ৮.২৭ মিনিটে তোলা ঘূর্ণিঝড় আমফানের ছবি। আই ওয়াল রিপ্লেসমেন্টেের জন্য দেখা যাচ্ছে না ঝড়ের কেন্দ্রে চোখটি।  

Cyclone Amphan Update: মঙ্গলবার সকালে কিছুটা দুর্বল হল আমফান, কিন্তু ফের ফিরে পাবে শক্তি

  • ঘূর্ণিঝড়ের কেন্দ্রে হাওয়ার গতিবেগ ছিল ২৪০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা। যা দমকা হাওয়া হিসাবে ২৯০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছিল।

‘আই ওয়াল রিপ্লেসমেন্ট’-এর কারণে সোমবার রাতে কিছুটা দুর্বল হয়েছে ঘূর্ণিঝড় আমফান। কিন্তু আগামী ৬ – ১২ ঘণ্টার মধ্যে ফের সুপার সাইক্লোনে পরিণত হবে ঝড়টি। সোমবার সকালে বেসরকারি আবহাওয়া সংস্থার তরফে এমনই জানানো হয়েছে।

মঙ্গলবার সকালে উপগ্রহ চিত্রে ঘূর্ণিঝড়ের কেন্দ্রটি দেখা যায়নি। তখন ঝড়ের কেন্দ্রে বায়ুচাপ ছিল ৯২১ মিলিবার। এদিন সকালে ঘূর্ণিঝড়ের কেন্দ্রটি কলকাতা থেকে ৭৮০ কিলোমিটার দক্ষিণ, দক্ষিণ-পশ্চিমে অবস্থান করছিল। ঘণ্টায় ১৬ কিলোমিটার বেগে উপকূলের দিকে এগোচ্ছিল ঝড়ের কেন্দ্রটি। 

 আবহবিদরা জানাচ্ছেন, ক্যাটাগরি ৩ ঘূর্ণিঝড়, যার বাসাতের গতি ঘণ্টায় ১৮৫ কিলোমিটার বা তার বেশি থাকে, তার ক্ষেত্রে ‘আই ওয়াল রিপ্লেসমেন্ট’ ঘটে থাকে। 

এই প্রক্রিয়ায় বাইরের বাতাসের চাপে ঘূর্ণিঝড়ের কেন্দ্রের মেঘবলয়টি অত্যন্ত সংকুচিত হয়ে যায়। তখন বাইরের কোনও শক্তিশালী বলয় এসে সেই স্থান গ্রহণ করে। এই প্রক্রিয়া শেষ হবে ৬ থেকে ১২ ঘণ্টা সময় লাগে। প্রক্রিয়া শেষ হলে ফের পুরনো শক্তি ফিরে পায় ঝড়টি। 

মঙ্গলবার সকালে ‘আই ওয়াল রিপ্লেসমেন্ট’-এর কারণে কিছুটা শক্তি হারিয়ে সুপার সাইক্লোন থেকে ক্যাটাগরি ফোর সাইক্লোনে পরিণত হয় আমফান। তখন ঘূর্ণিঝড়ের কেন্দ্রে হাওয়ার গতিবেগ ছিল ২৪০ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা। যা দমকা হাওয়া হিসাবে ২৯০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছিল। 

ঝড়টি ফের কিছুটা শক্তি সঞ্চয় করে বুধবার দুপুরের পর পশ্চিমবঙ্গ বা বাংলাদেশ উপকূলে আঘাত হানবে বলে পূর্বাভাস। 

 

বন্ধ করুন