বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > শুধু হেডকোয়ার্টারে থাকলে হবে না, ডিজি, আইজিদের থানা ভিজিট করতে হবে:‌ মমতা
 নবান্নে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (PTI)
 নবান্নে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (PTI)

শুধু হেডকোয়ার্টারে থাকলে হবে না, ডিজি, আইজিদের থানা ভিজিট করতে হবে:‌ মমতা

  • মুখ্যমন্ত্রী এফআইআরের প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে জানান, ‘‌একই মামলায় একাধিক এফআইআর হলে কোন এফআইআরটা নিতে হবে, সেটা বুঝতে হবে। ঠিক সময়ে চার্জশিট জমা দিতে হবে।’‌

শুধু হেড কোয়ার্টারে বসে থাকলে হবে না, থানায় যেতে হবে ডিজি, আইজিদের। এই ভাষাতেই রাজ্যের আইন শৃঙ্খলাকে মজবুত করার লক্ষ্যে পুলিশ প্রশাসনকে আরও সক্রিয় হওয়ার বার্তা দিলেন মুখ্যমন্ত্রী। একইসঙ্গে একই মামলায় একাধিক এফআইআর হলে কোন এফআইআর নিতে হবে, সেটা ঠিকমতো বুঝে নেওয়ার কথাও বলেন মুখ্যমন্ত্রী।

এদিন বিভিন্ন জেলার জেলাশাসক, এসপিদের সঙ্গে বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৈঠকে ডিজি, আইজি, পুলিশ সুপারদের উদ্দেশ্যে মুখ্যমন্ত্রী জানান, ‘‌শুধু হেড কোয়ার্টারে বসে থাকলেই হবে না। ডিজি, আইজিকে থানায় যেতে হবে। প্রতি জেলায় যেতে হবে। একইসঙ্গে পুলিশ সুপারদেরও জেলার বিভিন্ন থানায় যেতে হবে। থানার যে সব আইসি আছে, তাঁদেরও এলাকা সম্পর্কে সম্যক জ্ঞান থাকা দরকার।’‌ এদিন মুখ্যমন্ত্রী পুলিশ কর্তাদের পরামর্শ দেন, ‘‌কোনও খবর সম্পর্কে যদি সঠিক তথ্য জানতে হয়, তাহলে অনেক সময়ে তো আপনারা জেলার বিভিন্ন সাংবাদিকদের সাহায্য নিতে পারেন। আপনাদের তো সোর্সদের জন্য টাকা দেওয়া হয়। সেই টাকা থেকেই না হয়, সাংবাদিকদের দেওয়া হল। জেলায় অনেক সাংবাদিক আছেন, যারা ঠিক খবর আপনাদের দিতে পারেন। তাঁদের সাহায্য নিন।’‌ সেইসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়ে দেন, প্রতিটি জেলায় এসপিদের ডিএমের সঙ্গে ভাল সম্পর্ক রেখে চলতে হবে। এদিন মুখ্যমন্ত্রী বেশ কিছু জেলার প্রশাসনের সঙ্গে ভিডিয়ো কনফারেন্সের মাধ্যমে বৈঠক করেন। সেইসময় জেলা ধরে ধরে কোন জেলার কী ব্যবস্থা নেওয়া দরকার, সেবিষয়ে পরামর্শ দেন।

এদিন মুখ্যমন্ত্রী এফআইআরের প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে জানান, ‘‌একই মামলায় একাধিক এফআইআর হলে কোন এফআইআরটা নিতে হবে, সেটা বুঝতে হবে। ঠিক সময় চার্জশিট জমা দিতে হবে।’‌ এদিন মুখ্যমন্ত্রী স্পষ্ট বুঝিয়ে দেন, যখনই কোনও অভিযোগ আসবে, সেই অভিযোগের সত্যতা যাচাই করা দরকার। সত্যতা যাচাই করে তবে সে বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়া প্রয়োজন।

বন্ধ করুন