বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > মাদ্রাসায় শিক্ষক হিসাবে, মসজিদে মৌলবি হয়ে লুকিয়ে থাকছে জঙ্গিরা: দিলীপ ঘোষ

মাদ্রাসায় শিক্ষক হিসাবে, মসজিদে মৌলবি হয়ে লুকিয়ে থাকছে জঙ্গিরা: দিলীপ ঘোষ

দিলীপ ঘোষ। 

তাঁর দাবি, 'ডায়মন্ড হারবার থেকে জঙ্গি গিয়ে অন্য রাজ্যে অপারেশন করছে। ওখান থেকে তাড়া খেলে পালিয়ে আসছে। বাংলাদেশ থেকে ঢুকে এখানে থাকছে। এখানে জাল বিস্তার করছে। জঙ্গি নিয়োগ হচ্ছে।

ডায়মন্ড হারবারে আল কায়েদা জঙ্গি ধরা পড়ার ঘটনায় ফের একবার তৃণমূলকে আক্রমণ করলেন বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষ। সোমবার সকালে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, জঙ্গিরা শিক্ষক হয়ে মাদ্রাসায় ও মৌলবি হয়ে মসজিদে লুকিয়ে রয়েছে। একই সঙ্গে জঙ্গিদের সনাক্ত করতে রাজ্যে CAA লাগুর দাবি জানিয়েছেন তিনি।

এদিন দিলীপবাবু বলেন, ‘উত্তর ২৪ পরগনা, দক্ষিণ ২৪ পরগনা, বীরভূম, হাওড়া, মালদা, উত্তরবঙ্গের আরও কয়েকটা জেলা, নদিয়া, মুর্শিদাবাদ এগুলো জঙ্গিদের ঘাঁটি হয়ে গেছে। পুলিশ জানে। কিন্তু পুলিশ হাত দেবে না, কারণ এর সঙ্গে রাজনীতির যোগ রয়েছে। সরকার জানে, সরকারের ভোটের ব্যাপার রয়েছে। সেজন্য সারা ভারতবর্ষ থেকে সমস্ত জঙ্গি মডিউল এখানে চলে এসেছে। একাধিক জঙ্গি ধরা পড়েছে। বিভিন্ন আইনি - বেআইনি মাদ্রাসায় এরা শিক্ষক হিসাবে থাকছে। কোথাও মসজিদের মৌলবি হয়ে থাকছে। সরকার যেহেতু এদের পাশে রয়েছে তাই কেউ গায়ে হাত দিচ্ছে না'। 

তাঁর দাবি, 'ডায়মন্ড হারবার থেকে জঙ্গি গিয়ে অন্য রাজ্যে অপারেশন করছে। ওখান থেকে তাড়া খেলে পালিয়ে আসছে। বাংলাদেশ থেকে ঢুকে এখানে থাকছে। এখানে জাল বিস্তার করছে। জঙ্গি নিয়োগ হচ্ছে। এটা গোয়েন্দার রিপোর্টে এসেছে। সাধারণ চোখেও দেখা যায়। এদের সনাক্ত করতে সবার আগে CAA দরকার। তাহলেই তৃণমূলের হয়ে যে বিদেশি শক্তি ভোট করাচ্ছে তারা ধরা পড়ে যাবে’।

বলে রাখি মথুরাপুর থেকে আল কায়েদা জঙ্গি মনিরুদ্দিন খান (২০)কে গ্রেফতার করে কলকাতা পুলিশের STF. ধৃত যুবক জঙ্গিদের ভুয়ো নথি তৈরি করে দিত বলে জানিয়েছেন তদন্তকারীরা।

 

বন্ধ করুন