বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > 'রাজ্যপাল তৃণমূলের গলার কাঁটা. তাঁকে দেখলে ওদের মানসিক রোগ বাড়ছে,' তোপ দিলীপের
দিলীপ ঘোষ, বিজেপির রাজ্য সভাপতি (ফাইল ছবি)

'রাজ্যপাল তৃণমূলের গলার কাঁটা. তাঁকে দেখলে ওদের মানসিক রোগ বাড়ছে,' তোপ দিলীপের

  • দিল্লি গিয়ে রিপোর্ট করা ওনার কাজ, জানালেন দিলীপ ঘোষ

সম্প্রতি দিল্লি গিয়ে জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারপার্সনের সঙ্গে দেখা করেন রাজ্যপাল। একাধিক কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর সঙ্গেও দেখা করেছেন তিনি। মূলত ভোট পরবর্তী হিংসার ঘটনা নিয়ে সরব হয়েছেন তিনি। এরপরই তৃণমূল ও বামেরা রাজ্যপালকে নিশানা করে তোপ দাগেন। আর গোটা ঘটনায় তীব্র প্রতিক্রিয়া বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের। তিনি বলেন, ‘রাজ্যপাল এখন তৃণমূলের গলার কাঁটা হয়ে গিয়েছে। ওনাকে গোড়া থেকে এমন সমালোচনা করেছে যে কোনও ভালো জিনিস দেখতে পারছে না। রাজ্যপাল হিসাবে কি রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে পারেন না? কেন দেখা করেছেন, কী আলোচনা হয়েছে সেটা তো তাঁদের ব্যাপার। দিল্লি গিয়ে রিপোর্ট করা ওনার কাজ। সব কিছুতে কষ্ট হয় ওনাদের। টিএমসির একটি মানসিক অসুখের মতো হয়েছে।  রাজ্যপালকে দেখলেই ওদের বেড়ে যাচ্ছে।’ 

 

রাজ্যপালকে আঙ্কেল বলা নিয়ে মহুয়া মিত্রের মন্তব্য প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘কে কাকে আঙ্কেল বললেন জানি না। আমাদের মাথাব্যাথা বা রাজ্যের মানুষের মাথাব্যাথার কারণ নেই। সিপিএমের একটু আধটু মাথাব্যাথা আছে। বিমান বাবু সেই বাণী আজও দিচ্ছেন। এই করতে করতে পার্টিটাই ডকে উঠে গেল। বেশি গুরুত্ব ওরা দিতে চাইছেন বলে তিনিও গুরুত্ব নিতে চাইছেন। উনি যে প্রশ্ন তুলেছেন তার উত্তর তৃণমূলের কাছে নেই।’ হিংসা কমেছে কিনা এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘কমেছে হয়তো কিন্তু বন্ধ হয়নি। পুলিশের কিছু সহযোগিতা পাওয়া গিয়েছে। তবে সবটাই আদালতের নির্দেশের পর এটা হয়েছে। কিছু জায়গায় প্রতিবাদ আন্দোলন হয়েছে।’

 

সম্প্রতি দিল্লি গিয়ে জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারপার্সনের সঙ্গে দেখা করেন রাজ্যপাল। একাধিক কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর সঙ্গেও দেখা করেছেন তিনি। মূলত ভোট পরবর্তী হিংসার ঘটনা নিয়ে সরব হয়েছেন তিনি। এরপরই তৃণমূল ও বামেরা রাজ্যপালকে নিশানা করে তোপ দাগেন। আর গোটা ঘটনায় তীব্র প্রতিক্রিয়া বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষের। তিনি বলেন, ‘রাজ্যপাল এখন তৃণমূলের গলার কাঁটা হয়ে গিয়েছে। ওনাকে গোড়া থেকে এমন সমালোচনা করেছে যে কোনও ভালো জিনিস দেখতে পারছে না। রাজ্যপাল হিসাবে কি রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে পারেন না? কেন দেখা করেছেন, কী আলোচনা হয়েছে সেটা তো তাঁদের ব্যাপার। দিল্লি গিয়ে রিপোর্ট করা ওনার কাজ। সব কিছুতে কষ্ট হয় ওনাদের। টিএমসির একটি মানসিক অসুখের মতো হয়েছে।  রাজ্যপালকে দেখলেই ওদের বেড়ে যাচ্ছে।’ 

রাজ্যপালকে আঙ্কেল বলা নিয়ে মহুয়া মিত্রের মন্তব্য প্রসঙ্গে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘কে কাকে আঙ্কেল বললেন জানি না। আমাদের মাথাব্যাথা বা রাজ্যের মানুষের মাথাব্যাথার কারণ নেই। সিপিএমের একটু আধটু মাথাব্যাথা আছে। বিমান বাবু সেই বাণী আজও দিচ্ছেন। এই করতে করতে পার্টিটাই ডকে উঠে গেল। বেশি গুরুত্ব ওরা দিতে চাইেন বলে তিনিও গুরুত্ব নিতে চাইছেন। উনি যে প্রশ্ন তুলেছেন তার উত্তর তৃণমূলের কাছে নেই।’ হিংসা কমেছে কিনা এই প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘কমেছে হয়তো কিন্তু বন্ধ হয়নি। পুলিশের কিছু সহযোগিতা পাওয়া গিয়েছে। তবে সবটাই আদালতের নির্দেশের পর এটা হয়েছে। কিছু জায়গায় প্রতিবাদ আন্দোলন হয়েছে।’

|#+|

 

 

 

 

 

 

 

বন্ধ করুন