ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

মুখ্যমন্ত্রী লকডাউন মানছেন না, লকডাউন মানা হচ্ছে না সংখ্যালঘু অধ্যুষিত এলাকায়

একই সঙ্গে দিলীপবাবুর দাবি, রাজ্যের সংখ্যালঘু অধ্যুষিত এলাকায় মানা হচ্ছে না লকডাউন।

করোনাভাইরাস সংক্রমণ রুখতে দেশজুড়ে লকডাউন চললেও পশ্চিমবঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী নিজেই সেই আইন মানছেন না। শুক্রবার সন্ধ্যায় এক ভিডিয়ো বার্তায় এমনই গুরুতর অভিযোগ আনলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

এদিন দিলীপবাবু বলেন, করোনাভাইরাসের সংক্রমণে বিশ্বের উন্নত সব দেশও শ্মশানে পরিণত হয়েছে। সেকথা জেনেও মুখ্যমন্ত্রী রোজ রাস্তায় বেরোচ্ছেন। সঙ্গে লোক নিয়ে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। মুখ্যমন্ত্রীর রাস্তয় বেরিয়ে খাবার বিতরণ করার দরকার নেই, লোককে বোঝানোর দরকার নেই। সেজন্য সরকারি কর্মচারীরা রয়েছেন। ক্লাব রয়েছে, স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা রয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী নিজে আইন ভাঙলে সাধারণ মানুষ কেন আইন মানবে?

একই সঙ্গে দিলীপবাবুর দাবি, রাজ্যের সংখ্যালঘু অধ্যুষিত এলাকায় মানা হচ্ছে না লকডাউন। সেখানে প্রচুর মানুষ রাস্তায় ভিড় করছেন। দিলীপবাবুর সাবধানবাণী, ভাইরাস জাতি ধর্ম চেনে না। তাই সংক্রমণ ছড়ালে নিজের তো ক্ষতি হবেই, ক্ষতি হবে অন্যদেরও। তাই বাড়িতে থাকুন।


করোনাভাইরাসের জেরে লকডাউন শুরু হতেই তৎপরতা বাড়িয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। নিয়ম করে নবান্ন তো যাচ্ছেনই। সঙ্গে বেরিয়ে পড়ছেন কলকাতা পরিদর্শনে। কখনো হাসপাতালে গিয়ে অভাব অভিযোগ শুনছেন। কখনো বিতরণ করছেন খাদ্যসামগ্রী। মুখ্যমন্ত্রী কোথাও গেলে সেখানে ভিড় করছে সাধারণ মানুষ। যার ফলে সংক্রমণের সম্ভাবনা থেকেই যাচ্ছে।

বন্ধ করুন