বাঁ দিকে, মঙ্গলবার ভিনরাজ্য থেকে আসা ট্রেনের কামরায় জানলার ধারে বসে এক তরুণী। বাঁ দিকে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।
বাঁ দিকে, মঙ্গলবার ভিনরাজ্য থেকে আসা ট্রেনের কামরায় জানলার ধারে বসে এক তরুণী। বাঁ দিকে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

‘আজমের, কেরল থেকে শুধু বিশেষ সম্প্রদায়ের মানুষকে ট্রেনে ফেরাচ্ছে মমতার সরকার’

  • দিলীপবাবুর প্রশ্ন, ‘যে রাজ্যে হেল্প লাইনে যোগাযোগ করা যায় না। নোডাল অফিসার ফোন ধরেন না সেখানে এরা ফিরলেন কী করে?’

শুধুমাত্র একটি বিশেষ সম্প্রদায়ের মানুষকে বাড়ি ফেরাতে তৎপর মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার। বাকিদের জন্য কোনও হেলদোল নেই। মঙ্গলবার বিকেলে এমনই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ করলেন পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ। সঙ্গে তাঁর দাবি, রাজ্য সরকার প্রবাসী শ্রমিকদের জন্য কুমিরের কান্না কাঁদছে। 

এদিন দিলীপবাবু বলেন, দেশের বিভিন্ন জায়গায় বিভিন্ন কারণে পশ্চিমবঙ্গের বহু মানুষ আটকে রয়েছেন। কিন্তু তাদের ফেরাতে কোনও হেলদোল নেই রাজ্য সরকারের। কেউ শ্রমিক হিসাবে, কেউ চিকিৎসা করতে, কেউ তীর্থ করতে বা বেড়াতে গিয়ে আটকে রয়েছেন। রাজ্য সরকারের হেল্প লাইনে ফোন করছেন, কিন্তু কেউ ফোন ধরছেন না। এমনকী এই কাজের জন্য নিযুক্ত নোডাল অফিসারও ফোন ধরছেন না বলে অভিযোগ করেছেন দিলীপবাবু।

ভিনরাজ্য থেকে আসা বিশেষ ট্রেন থেকে নেমে বাড়ির পথে কিছু যাত্রী। মঙ্গলবার ডানকুনি স্টেশনের ছবি।
ভিনরাজ্য থেকে আসা বিশেষ ট্রেন থেকে নেমে বাড়ির পথে কিছু যাত্রী। মঙ্গলবার ডানকুনি স্টেশনের ছবি।

তাঁর দাবি, বিভিন্ন রাজ্যের পুলিশ বলছে, আপনারা পশ্চিমবঙ্গ সরকারের অনুমতি নিয়ে গাড়ির ব্যবস্থা করুন। আমরা যেতে দেব। কিন্তু রাজ্য সরকার অনুমতি দিচ্ছে না। যার ফলে সেই সব রাজ্যে আটকে থাকা মানুষ বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন। 

দিলীপবাবু জানান, রাজ্য সরকারের অনুরোধে আটকে পড়া শ্রমিকদের ফেরাতে কেন্দ্রীয় সরকার বিশেষ ট্রেন চালাচ্ছে। সেই ট্রেন চালানোর খরচের ৮৫ শতাংশ দিচ্ছে রেল। এখনো পর্যন্ত ২টি এই রকম ট্রেন রাজ্যে এসেছে। একটি এসেছে কেরল থেকে, অন্যটি রাজস্থান থেকে। 

মঙ্গলবার ভিনরাজ্য থেকে পশ্চিমবঙ্গে আসা একটি ট্রেনে জানলার ধারে বসে একটি শিশু।
মঙ্গলবার ভিনরাজ্য থেকে পশ্চিমবঙ্গে আসা একটি ট্রেনে জানলার ধারে বসে একটি শিশু। (AFP)

দিলীপবাবুর প্রশ্ন, ‘যে রাজ্যে হেল্প লাইনে যোগাযোগ করা যায় না। নোডাল অফিসার ফোন ধরেন না সেখানে এরা ফিরলেন কী করে?’ এর পর নিজেই সে প্রশ্নের জবাব দেন তিনি। বলেন, ‘যতদূর জানি রাজ্য সরকারের তরফে একটি বিশেষ সম্প্রদায়ের মানুষকে এই সুবিধা দেওয়া হচ্ছে। আজমেরে যারা তীর্থ করতে গিয়েছিলেন তাঁরা ফিরছেন, আমরা দেখেছি তারা একটি বিশেষ সম্প্রদায়ের মানুষ তাঁরা। কেরল থেকেও সেরকম।’ দিলীপ ঘোষের দাবি, এখনো পর্যন্ত ট্রেনে করে ভিনরাজ্য থেকে যাঁরা পশ্চিমবঙ্গে ফিরেছেন তাঁদের মধ্যে কোনও প্রবাসী শ্রমিক নেই। অথচ এই শ্রমিকদের জন্যই ট্রেন চালাচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার। 

 

বন্ধ করুন