বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > Tangra Murder: বৃদ্ধার সম্পত্তি হাতাতে পারিবারিক বিবাদ, ট্যাংরায় পিটিয়ে খুনের অভিযোগ
পিটিয়ে খুনের অভিযোগ উঠল।

Tangra Murder: বৃদ্ধার সম্পত্তি হাতাতে পারিবারিক বিবাদ, ট্যাংরায় পিটিয়ে খুনের অভিযোগ

  • বুধবার সন্ধ্যায় অশান্তি শুরু হয়। লক্ষ্মী মণ্ডল, দিলীপ মণ্ডল এবং কমলা মণ্ডলদের সঙ্গে গীতার বচসা বাধে। সেটাই বাড়তে থাকে এবং চিৎখআ–চেঁচামিচির পর্যায়ে পৌঁছয়। অভিযোগ, এই বচসা চলাকালীন আচমকা লাঠি নিয়ে বৃদ্ধাকে মারে অভিযুক্তরা। তাঁর শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। 

সম্পত্তি বলতে একটি জমি ছিল। আর তা নিজেদের হস্তগত করতেই পারিবারিক বিবাদ লেগে থাকত। আর তার জেরে পিটিয়ে খুনের অভিযোগ উঠল। এভাবেই মেরে ফেলা হয়েছে গীতা মণ্ডলকে (‌৬৫)‌। অভিযোগ উঠেছে, লক্ষ্মী মণ্ডল, দিলীপ মণ্ডল এবং কমলা মণ্ডল নামে তাঁদেরই তিন আত্মীয় গীতাকে পিটিয়ে মেরেছে। এমনকী প্রায়ই রাজনৈতিক নেতার ভয় দেখানো হতো। আগেও একাধিকবার বৃদ্ধাকে মারধর করা হয়েছে বলে অভিযোগ গীতার মেয়ের।

ঠিক কী ঘটেছে ট্যাংরায়?‌ স্থানীয় সূত্রে খবর, একটা জমি ছিল গীতা মণ্ডলের। আর সেটা নিয়েই গীতা মণ্ডলের পরিবারে সমস্যা দেখা দিয়েছিল। স্থানীয় বাসিন্দারা পারিবারিক অশান্তি থেকে বিষয়টা জানতে পেরেছিলেন। ওই বাড়িতে অশান্তি হতো জমি নিয়েই। প্রতিবেশীরা মাঝেমধ্যে তাদের মধ্যস্থতা করতে যেতেন। কিন্তু পারিবারিক বিবাদ বলে বেশি জড়াতেন না। সেই অশান্তিই চরমে ওঠে এবং জমি হস্তগত করতে পিটিয়ে খুন করা হয়।

আর কী জানা যাচ্ছে?‌ জানা গিয়েছে, বুধবার সন্ধ্যায় অশান্তি শুরু হয়। লক্ষ্মী মণ্ডল, দিলীপ মণ্ডল এবং কমলা মণ্ডলদের সঙ্গে গীতার বচসা বাধে। সেটাই বাড়তে থাকে এবং চিৎখআ–চেঁচামিচির পর্যায়ে পৌঁছয়। অভিযোগ, এই বচসা চলাকালীন আচমকা লাঠি নিয়ে বৃদ্ধাকে মারে অভিযুক্তরা। তাঁর শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। এই মারধরের জেরে ঘটনাস্থলেই বৃদ্ধার মৃত্যু হয়।

বৃদ্ধার মেয়ের অভিযোগ কী?‌ মৃতার মেয়ে অভিযোগ করেন, ওরা মাকে পিটিয়ে খুন করেছে। রাজনৈতিক নেতার ভয় দেখানে হতো। জমি নিয়ে নিতে অনেকদিন ধরেই চেষ্টা করা হচ্ছিল। কিন্তু এমন পরিণতি ঘটবে সেটা ভাবা যায়নি। এই ঘটনাটি নিয়ে ট্যাংরা থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্তরা। তাঁদের খোঁজে তল্লাশি চলছে।

বন্ধ করুন