বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ১৮ কোটিতে থামল গুনতি, ২০টি ট্রাঙ্কে টাকা ভরে গার্ডেনরিচ থেকে ফিরল ED
আমির খানের বাড়িতে উদ্ধার টাকার পাহাড়।

১৮ কোটিতে থামল গুনতি, ২০টি ট্রাঙ্কে টাকা ভরে গার্ডেনরিচ থেকে ফিরল ED

  • ইডি সূত্রের খবর, ছাপোশা গেরস্থালির দোতলায় বক্স খাটের ভিতরে রাখা ছিল টাকা। অভিযোগ, অনলাইন অ্যাপে প্রতারণায় যুক্ত নাসির খানের ছেলে আমির খান। সেই টাকাই রাখা ছিল বাড়িতে।

দীর্ঘ প্রায় ১২ ঘণ্টা পর কলকাতার গার্ডেনরিচে নাসির খানের বাড়িতে টাকা গোনা শেষ করলেন ইডি আধিকারিকরা। উদ্ধার হল ১৮ কোটি টাকা। যা নিয়ে যেতে ২০টি ট্রাঙ্ক ও একটি ট্রাক এনেছেন তদন্তকারীরা। রাত ৮.৩০ মিনিট নাগাদ সেই টাকা ট্রাঙ্কে ভরে নিয়ে যান ইডি আধিকারিকরা।

শনিবার সকালে গার্ডেন রিচের শাহি আস্তাবল এলাকায় পরিবহণ ব্যবসায়ী নাসির খানের বাড়িতে হানা দেন ইডির গোয়েন্দারা। জানা যায় সেখানে রয়েছে কোটি কোটি টাকা। এর পর ব্যাঙ্ক থেকে একে একে ৮টি টাকা গোনার যন্ত্র আনেন তদন্তকারীরা। গণনা শুরু হতেই ঘণ্টায় ঘণ্টায় বাড়তে থাকে টাকার অংক। রাত ৮টা নাগাদ যখন গণনা শেষ হয়, জানা যায় উদ্ধার হয়েছে ১৮ কোটি টাকা।

খাটের নীচে ১৭ কোটির পাহাড়, আর কোন প্রভাবশালী যুক্ত গার্ডেনরিচ কাণ্ডে?

ইডি সূত্রের খবর, ছাপোশা গেরস্থালির দোতলায় বক্স খাটের ভিতরে রাখা ছিল টাকা। অভিযোগ, অনলাইন অ্যাপে প্রতারণায় যুক্ত নাসির খানের ছেলে আমির খান। সেই টাকাই রাখা ছিল বাড়িতে। ২০২০ সালের সেপ্টেম্বর মাসে অনলাইন অ্যাপে দেশজুড়ে প্রতারিত হয়েছিলেন লক্ষ লক্ষ মানুষ। অভিযোগ জমা পড়েছিল গোটা দেশ জুড়ে। গোয়েন্দাদের দাবি, প্রায় ৭৫ কোটি টাকা সরানো হয়েছিল ই-নাগেটস নামে ওই অ্যাপের মাধ্যমে।

এই টাকা কোথা থেকে এল তার সদুত্তর দিতে পারেনি নাসির খানের পরিবারের কোনও সদস্য। তবে পরিবারের কোনও সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানা যায়নি। মূল অভিযুক্ত আমির খান পলাতক। তার ৩টি মোবাইল ফোনই বন্ধ।

 

বন্ধ করুন