বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > ই-পাসের দাম ফিরিয়ে দেবে ‘ফোরাম ফর দুর্গোৎসব’, জেনে নিন কী ভাবে মিলবে টাকা
কলকাতায় একটি পুজো মণ্ডপে ঝুলছে বিশাল প্রতীকি তালা। (PTI)
কলকাতায় একটি পুজো মণ্ডপে ঝুলছে বিশাল প্রতীকি তালা। (PTI)

ই-পাসের দাম ফিরিয়ে দেবে ‘ফোরাম ফর দুর্গোৎসব’, জেনে নিন কী ভাবে মিলবে টাকা

  • বুধবার রিভিউ পিটিশনের শুনানি হলে তা দেখে পাসের ভবিষ্যৎ সম্পর্কে সিদ্ধান্ত হবে। আদালত পুরনো রায়ে বহাল থাকলে পাসের টাকা ফিরিয়ে দেবে ফোরাম।

বিক্রি করা ই-পাসের টাকা ফেরত দেবে কলকাতায় দুর্গাপুজো আয়োজকদের সংগঠন ‘ফোরাম ফর দুর্গোৎসব’। ফোরামের এক কর্তা জানিয়েছেন, কলকাতা হাইকোর্ট পুজো মণ্ডপে দর্শক প্রবেশের রায় অপরিবর্তিত রাখলে টাকা ফেরত দেওয়া হবে পাসধারীদের। 

করোনা পরিস্থিতির মধ্যে দুর্গাপুজোয় ভিড় নিয়ন্ত্রণে রাখতে ই-পাস জারি করেছিল ফোরাম ফর দুর্গোৎসব। গত ১৫ অক্টোবর থেকে অনলাইনে শুরু হয় পাস বিক্রি। অ্যাপ ও ওয়েবসাইট থেকে মিলছিল পাস। ফোরামের তরফে জানানো হয়েছিল, গোটা দিনকে ২ ঘণ্টা করে মোট ১২টি ভাগে ভাগ করা হয়েছিল। যে যে ভাগের পাস সংগ্রহ করবেন তাঁকে তখনই আসতে হবে ঠাকুর দেখতে। 

উত্তর কলকাতার ১৮টি ও দক্ষিণ কলকাতার ২৩টি বড় পুজো দেখতে ই-পাস বাধ্যতামূলক বলে জানানো হয়েছিল। প্রতিটি পাসের দাম ছিল ২০০ টাকা। 

ফোরামের ঘোষণার পরই ঠাকুর দেখতে অনলাইনে পাস সংগ্রহ করে ফেলেন অনেকে। কিন্তু গোল বাঁধে সোমবার হাইকোর্টের রায়ে। বিচারপতি সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশ অনুসারে রাজ্যের সমস্ত পুজো মণ্ডপকে কনটেনমেন্ট জোন ঘোষণা করা হয়েছে। এছাড়া পুজো মণ্ডপের থেকে ১০ মিটার দূরে দেওয়া হয়েছে বেড়া। ঠাকুর দেখায় নিষেধাজ্ঞা জারি হওয়ায় অপ্রাসঙ্গিক হয়ে পড়েছে বিক্রি হওয়া পাসগুলি। 

এই পরিস্থিতিতে ফোরামের তরফে জানানো হয়েছে, বুধবার রিভিউ পিটিশনের শুনানি হলে তা দেখে পাসের ভবিষ্যৎ সম্পর্কে সিদ্ধান্ত হবে। আদালত পুরনো রায়ে বহাল থাকলে পাসের টাকা ফিরিয়ে দেবে ফোরাম। সেক্ষেত্রে যে অ্যাপ বা ওয়েবসাইটের মাধ্যমে পাস কিনেছিলেন তার মাধ্যমেই ফিরিয়ে দেওয়া হবে টাকা।

বন্ধ করুন