বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > মুখ্যমন্ত্রী সহ রাজ্যের বড় নেতাদের বিজয়ার মিষ্টি পাঠালেন রাজ্যপাল

মুখ্যমন্ত্রী সহ রাজ্যের বড় নেতাদের বিজয়ার মিষ্টি পাঠালেন রাজ্যপাল

রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

রাজ্যপাল হিসেবে সিভি আনন্দ বোসের বাংলায় এটাই প্রথম দুর্গাপুজো। তিনি শুধু মুখ্যমন্ত্রীকেই শুভেচ্ছা বার্তা পাঠাননি রাজ্যের একাধিক মন্ত্রী এবং আইপিএসদের তিনি বিজয়ার মিষ্টি সহ শুভেচ্ছা বার্তা পাঠিয়েছেন। 

রাজ্যপালের সঙ্গে রাজ্য সরকারের সংঘাত চলছে গত বেশ কয়েক মাস ধরে। কিন্তু, পুজোর আবহে সেই সংঘাত ভুলে গিয়ে অষ্টমীর সকালে তৃণমূল কংগ্রেসের মুখপাত্র কুণাল ঘোষের রামমোহন সম্মিলনীর মণ্ডপে দেখা গিয়েছিল রাজ্যপালকে। সেখানে দুজনকেই একে অপরের প্রতি সৌজন্য বিনিময় করতে দেখা যায়। আর এবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে মিষ্টি সহ বিজয়ার শুভেচ্ছাবার্তা পাঠালেন রাজ্যপাল সিভি আনন্দ বোস। 

আরও পড়ুন: অষ্টমীর সকালে কুণালের পাড়ার পুজোয় রাজ্যপাল, তৃণমূল নেতার সঙ্গে দিলেন অঞ্জলিও

রাজ্যপাল হিসেবে সিভি আনন্দ বোসের বাংলায় এটাই প্রথম দুর্গাপুজো। তিনি শুধু মুখ্যমন্ত্রীকেই শুভেচ্ছা বার্তা পাঠাননি রাজ্যের একাধিক মন্ত্রী এবং আইপিএসদের তিনি বিজয়ার মিষ্টি সহ শুভেচ্ছা বার্তা পাঠিয়েছেন। জানা গিয়েছে, সেই তালিকায় রয়েছেন চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য, অরূপ রায়, অরূপ বিশ্বাস, শশী পাঁজা এবং শোভনদেব চট্টোপাধ্যায়ের মতো রাজ্যের মন্ত্রীরা। তাঁদের বিজয়ার শুভেচ্ছা বার্তা সহ মিষ্টি পাঠিয়েছেন রাজ্যপাল। যদিও কলকাতা পুরসভার মেয়র ফিরহাদ হাকিম এবং কলকাতার পুলিশ কমিশনার বিনীত গোয়েল এখনও রাজভবনের তরফে শুভেচ্ছা বার্তা পাননি। তবে রাজ্য বিধানসভার স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়কে মিষ্টি সহ শুভেচ্ছা বার্তা পাঠিয়েছেন রাজ্যপাল। 

উল্লেখ্য, গত কয়েক মাস ধরে বিশ্ববিদ্যালয়গুলিতে উপাচার্য নিয়োগ নিয়ে রাজ্যপালের সঙ্গে সংঘাতে জড়িয়েছে রাজ্য সরকার। রাজ্যের একাধিক নেতা মন্ত্রী এ নিয়ে রাজ্যপালকে একাধিকবার কটাক্ষ করেছেন। তার মধ্যে রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু রাজ্যপালকে সবচেয়ে বেশি আক্রমণ করেছেন। তবে রাজনৈতিকভাবে মতাদর্শগত দিক দিয়ে বিরোধ থাকলেও উৎসবের আহবে শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসুকেও মিষ্টি সহ শুভেচ্ছা বার্তা পাঠাতে ভোলেননি রাজ্যপাল।

উল্লেখ্য, অষ্টমীর সকালে কুণাল ঘোষের পুজো রামমোহন সম্মিলনীতে রাজ্যপাল গেলে তাঁকে স্বাগত জানান তৃণমূল নেতা। রাজ্যপাল ধুতি-পাঞ্জাবি পরেই মণ্ডপে যান। তাঁকে উত্তরীয় পরিয়ে বরণ করতে দেখা যায় কুণাল ঘোষকে। রাজ্যপালও কুণাল এবং ক্লাবের পদাধিকারীদের হাতে উপহার তুলে দিয়েছিলেন। পরে তিনি কুণাল ঘোষকে পাশে নিয়ে অষ্টমীর অঞ্জলিও দেন। এরপর কুণাল রাজ্যপালকে মণ্ডপ ঘুরে। যদিও সেদিন পুজোতে গিয়েও দুর্নীতিকে নির্মূল করার কথা বলেছিলেন রাজ্যপাল। তবে উৎসবের আবহে রাজভবন থেকে কালীঘাটে বিজয়ার শুভেচ্ছা বার্তা পাঠানোকে তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছে রাজনৈতিক মহল।

বাংলার মুখ খবর
বন্ধ করুন

Latest News

বুধ শুক্রর গমনে ৫ রাশির প্রেম জীবন হবে চমৎকার, দেখুন সাপ্তাহিক প্রেম রাশিফল নেশামুক্তি কেন্দ্রে প্রচণ্ড মারধর করার অভিযোগ, নরক যন্ত্রণায় ভুগছেন যুবক বৃষ্টি থেকে আপাতত ৩ দিন নিস্তার নেই! রইল আগামী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাস ভিডিয়ো: চাহালকে বস্তার মতো কাঁধে তুলে নিলেন মহিলা কুস্তিগীর! কী হল তারপর? রঞ্জি সেমিফাইনালে ডাহা ফেল শ্রেয়স আইয়ার, রাহানেদের ব্যর্থতা ঢাকার চেষ্টা মুশিরের পবনের হয়ে ব্যাট ধরলেন অমিত মালব্য, নাম না করে কাঞ্চন-শ্রীময়ীর বিয়ের দিকে ইঙ্গিত? এক প্লেটের দাম ৫০ হাজার! অরুণদার পাইস হোটেলের খিচুড়ির দাম শুনে সৌরভ বললেন… ভাতপাতে মাছের সঙ্গে আঁশও খেয়ে ফেলেছেন? ভয় নেই, এর উপকার চমকে দেবে নরেন্দ্রপুরে ওভারহেডের তার ছিঁড়ে গেল, শিয়ালদা দক্ষিণে বন্ধ ট্রেন চলাচল ভিডিয়ো: বাইশ গজ নয় IPL 2024-র আগে ডান্স ফ্লোরে ব্র্যাভোকে চ্যালেঞ্জ জানালেন ধোনি

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.