বাড়ি > বাংলার মুখ > কলকাতা > রান্না নিয়ে বিবাদের জেরে গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে খুনের অভিযোগ
প্রতীকি ছবি
প্রতীকি ছবি

রান্না নিয়ে বিবাদের জেরে গৃহবধূকে শ্বাসরোধ করে খুনের অভিযোগ

  • মেয়ের অসুস্থতার খবরে পড়িমরি করে ছোটেন কাকলির পরিজনরা। গিয়ে দেখেন, হাসপাতালে পড়ে রয়েছে কাকলির মৃতদেহ।

সাংসারিক বিবাদের জেরে এক তরুণীকে শ্বাসরোধ করে খুনের অভিযোগ উঠল শ্বশুরবাড়ির লোকের বিরুদ্ধে। ঘটনা কলকাতা লাগোয়া নিউ টাউনের গৌরাঙ্গ নগরের। অভিযোগ, মঙ্গলবার রাতে কাকলি দেবনাথ নামে ওই গৃহবধূকে খুন করে আরজি কর হাসপাতালে দেহ ফেলে রেখে পালায় স্বামী। ঘটনায় অভিযুক্ত স্বামী ও শাশুড়িকে আটক করেছে পুলিশ। বুধবার দেহ ময়নাতদন্ত হয়েছে।

মৃতের পরিজনরা জানিয়েছেন, গত বৈশাখে নিউ টাউনের নিবেদিতা পল্লির বাসিন্দা রথীন হালদারকে পালিয়ে বিয়ে করেন কাকলি। মঙ্গলবার রাতে রথীন কালকির বাবাকে ফোন করে জানায় মেয়ে পেটের ব্যাথায় অজ্ঞান হয়ে গিয়েছে। তাঁকে হাসপাতালে নিযে আসা হয়েছে। কিন্তু বাবার সই ছাড়া হাসপাতাল ভর্তি নিচ্ছে না।

মেয়ের অসুস্থতার খবরে পড়িমরি করে ছোটেন কাকলির পরিজনরা। গিয়ে দেখেন, হাসপাতালে পড়ে রয়েছে কাকলির মৃতদেহ। এর পরই এলাকা ছাড়ে রথীন।

রাতেই নিউ টাউন থানায় রথীন ও তাঁর পরিবারের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে কাকলির পরিবার। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে আটক করা হয় অভিযুক্ত রথীন ও তাঁর মা-কে।

অভিযুক্তদের দাবি, রাতে রান্না নিয়ে সামান্য পারিবারিক বিবাদের জেরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মঘাতী হয়েছেন ওই তরুণী। যদিও তা মানতে নারাজ নিহতের পরিবার। তাদের দাবি, শ্বাসরোধ করে খুন করা হয়েছে কাকলিকে।



বন্ধ করুন