বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > 'মুখ্যমন্ত্রী হয়ে করতে পারিনি, সুব্রত মেয়র হয়েই করে দেখিয়েছে', বলেছিলেন বুদ্ধদেব
সুব্রত মুখোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য টুইটার @atkmohunbaganfc)
সুব্রত মুখোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য টুইটার @atkmohunbaganfc)

'মুখ্যমন্ত্রী হয়ে করতে পারিনি, সুব্রত মেয়র হয়েই করে দেখিয়েছে', বলেছিলেন বুদ্ধদেব

  • 'আমি মুখ্যমন্ত্রী হয়ে যা করতে পারিনি, ও মেয়র হয়েই তা করে দেখিয়েছে।'

'আমি মুখ্যমন্ত্রী হয়ে যা করতে পারিনি, ও মেয়র হয়েই তা করে দেখিয়েছে।'

কেন যে সুব্রত মুখোপাধ্যায়কে কলকাতার অন্যতম সেরা মেয়র হিসেবে বিবেচনা করা হয়, তা বোঝার জন্য বাম আমলের শেষ লগ্নে তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী বুদ্ধদেব ভট্টাচার্যের সেই উক্তিই যথেষ্ট ছিল। তবে সেই মন্তব্যের মাশুল অবশ্য গুনতে হয়েছিল সুব্রতবাবুকে। নিজের দল তৃণমূল কংগ্রেসের অন্দরেই বিরোধিতার মুখে পড়েছিলেন। দলের সঙ্গে তৈরি হয়েছিল দূরত্ব। তাঁকে ‘তরমুজ’ পর্যন্ত অ্যাখ্যা দেওয়া হয়েছিল।

ঠিক কী হয়েছিল?

জমি জটে দীর্ঘদিন ধরে লেক গার্ডেন্স ফ্লাইওভার নির্মাণকাজ আটকে ছিল। জমি সমস্যায় কাজ এগোচ্ছিল না। সেই জমি সমস্যা মিটিয়ে ফেলেছিলেন কলকাতার তৎকালীন মেয়র সুব্রতবাবু। তাঁর হস্তক্ষেপেই শেষ লেক গার্ডেন্স ফ্লাইওভারের কাজ। পরে উদ্বোধনের সময় বুদ্ধদেববাবুকে আমন্ত্রণ করেছিলেন। গাড়ি থেকে নেমে যে উক্তি করেছিলেন বুদ্ধদেববাবু, তা বাংলার রাজনীতির ইতিহাসে স্মরণীয় হয়ে আছে। কট্টর প্রতিপক্ষ সুব্রতবাবুকে উদ্দেশ করে বুদ্ধদেববাবুকে বলেছিলেন, 'আমি মুখ্যমন্ত্রী হয়ে যা করতে পারিনি, ও মেয়র হয়েই তা করে দেখিয়েছে।'

বুদ্ধবাবুর সেই মন্তব্যের পর তৃণমূলের সঙ্গে সুব্রতবাবুর দূরত্ব তৈরি হতে থাকে। তাঁকে ‘তরমুজ’ অ্যাখা দেওয়া হয়েছিল। পরবর্তীকালে তৃণমূলও ছেড়ে দিয়েছিলেন তিনি। নয়া মঞ্চ গড়েছিলেন। কংগ্রেসের সঙ্গে জোট করে ‘ঘড়ি' চিহ্নে লড়েছিলেন। তিনি জিতলেও হেরে গিয়েছিল জোট দল। কলকাতার মেয়র হননি আর। পরে অবশ্য ২০১০ সালে ফের তৃণমূলে ফিরে এসেছিলেন। তারপর থেকে জীবনের শেষদিন পর্যন্ত তৃণমূলেই ছিলেন। গুরুত্বপূর্ণ দফতরের মন্ত্রিত্বেও সামলেছেন।

বন্ধ করুন