বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > কলকাতা > নিজেদের ভুলে বেতন কাটছে কেন্দ্র, বিক্ষোভে কাল্টিভেশন অফ সায়েন্সের কর্মীরা
IACS-এর গেটের সামনে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন কর্মীরা। 
IACS-এর গেটের সামনে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন কর্মীরা। 

নিজেদের ভুলে বেতন কাটছে কেন্দ্র, বিক্ষোভে কাল্টিভেশন অফ সায়েন্সের কর্মীরা

  • কর্মচারী সংগঠনের নেতা সঞ্জীব নস্কর জানিয়েছেন, ১৫ বছর আগে বেতন মূল্যায়ণে ভুল হয়েছিল বলে দাবি করে মোটা টাকা বেতন কেটে নিচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার। যদিও তা কার্যকর হচ্ছে শুধুমাত্র শিক্ষাকর্মীদের ক্ষেত্রে।

কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে দুর্নীতি ও গা জোয়ারি মনোভাবের অভিযোগ তুলে আন্দোলনে নামলেন দেশের অন্যতম বিজ্ঞান উৎকর্ষ প্রতিষ্ঠান কলকাতার ইন্ডিয়ান অ্যাসোসিয়েশন ফর দ্যা কাল্টিভেশন অফ সায়েন্সের কর্মীরা। সোমবার এই অভিযোগে প্রতিষ্ঠানের গেটে ও সভাকক্ষে বিক্ষোভ দেখান তাঁরা। কর্মচারী সংগঠনের অভিযোগ, শিক্ষাকর্মীদের রক্ষা করতে নির্বিকার সংস্থার ভারপ্রাপ্ত ডিরেক্টর।

সংস্থার কর্মীসংগঠনের দাবি, স্বাধিকারের নামে প্রতিষ্ঠানে যথেচ্ছাচার চলছে। তাঁদের বেতন কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রতিষ্ঠানের ভিতরে চলছে দেদার দুর্নীতি। এই মর্মে সম্প্রতি যাদবপুর থানায় অভিযোগও দায়ের করেছে কর্মী সংগঠন।

কর্মচারী সংগঠনের এক নেতা জানিয়েছেন, ১৫ বছর আগে বেতন মূল্যায়ণে ভুল হয়েছিল বলে দাবি করে মোটা টাকা বেতন কেটে নিচ্ছে কেন্দ্রীয় সরকার। যদিও তা কার্যকর হচ্ছে শুধুমাত্র শিক্ষাকর্মীদের ক্ষেত্রে। অধ্যাপকরা বহাল তবিয়তে রয়েছেন এমনকী তাঁরা সরকারি খরচে নিয়ম ভেঙে বিদেশযাত্রা করছেন। এভাবে চললে বিশেষ করে চতুর্থ শ্রেণির কর্মীদের রাস্তায় বসতে হবে। অথচ কোনও হেলদোল নেই ডিরেক্টরের। কর্মীদের বাঁচানোর কোনও চেষ্টা করছেন না তিনি।

সংগঠনের দাবি, চতুর্থ শ্রেণির কর্মীদের মাসে ২০ – ২৫ হাজার টাকা করে বেতন কাটা যাচ্ছে। এভাবে চলতে থাকলে আত্মহত্যা করতে হবে তাঁদের।

পুরনো বেতনক্রম ফেরানো ও প্রতিষ্ঠানে স্বায়ত্বশাসনের নামে দুর্নীতি বন্ধের দাবিতে সোমবার বিক্ষোভ দেখান কাল্টিভেশন অফ সায়েন্সের শিক্ষাকর্মীরা। সংগঠনের তরফে জানানো হয়েছে, দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে।

 

বন্ধ করুন